১৯, নভেম্বর, ২০১৭, রোববার | | ২৯ সফর ১৪৩৯

অস্ত্র নয়, বুকে জড়িয়ে দুষ্কৃতী সামলালেন পুলিশ, দেখুন ভিডিও

১১ সেপ্টেম্বর ২০১৭, ০২:০৫

ঘটনা তাইল্যান্ডের।  এক আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যমের সূত্রে জানা গিয়েছে, ৪৫ বছরের ওই আততায়ী আচমকাই ব্যাঙ্ককের হুয়াই খোয়াং থানায় ঢুকে পড়েন ছুরি হাতে।  ভিডিওয় স্পষ্ট দেখা যাচ্ছে, পুলিশ অফিসার আনিরুট মালি বন্দুক বের করে তাক না করে কথায় ভোলাতে থাকেন ওই লোকটিকে।  তাঁর কথাতেই শেষ পর্যন্ত হাতের ছুরিটি তিনি দিয়ে দেন আনিরুটকে।  এর পরই ওই আততায়ীকে চমকে দিয়ে তাঁর দিকে দু’হাত বাড়িয়ে দেন তিনি।  তার পর বুকে জড়িয়ে ধরেন। 

ঠিক কী বলে আনিরুট ওই আততায়ীকে
সামলালেন।  উত্তরে তিনি জানিয়েছেন, ওই আততায়ীকে দেখেই তিনি অভিজ্ঞতা থেকে বুঝতে পেরেছিলেন ওই আততায়ীর আচরণ মোটেই পাকা অপরাধীদের মতো নয়।  হয়তো তিনি অত্যন্ত অবসাদগ্রস্ত অবস্থায় রয়েছেন, তাই এমন করছেন।  আততায়ী তাঁকে সে কথাও বলেও ফেলেন।  তাও একেবারে আনিরুটের আঞ্চলিক ভাষায়।  তখন আনিরুট তাঁকে বলেন, ‘‘আমি বুঝতে পারছি।  না হলে তুমি এমন করতে না।  আমরা তো এখই অঞ্চলের লোক।  তোমায় যদি কোনও ভাবে সাহায্য করতে পারি বোলো, বন্ধু। ’’  

এতেই চিঁড়ে ভেজে।  আততায়ী আনিরুটকে জানান, নিজের অবস্থার কথ।  এক সময় সুরকার হিসেবে কিছু কাজ করলেও, পরে তিনি সেই পেশা থেকে সরে আসেন।  কাজ করতেন এক জায়গার সিকিউরিটি গার্ডের।  কিন্তু সেখানেও পারিশ্রমিক পাননি।  উল্টে হারিয়ে ফেলেন সাধের গিটারটিও।  এই সব ঘটনা থেকেই তীব্র অবসাদে ভুগতে থাকেন তিনি।  তারই ফলস্বরূপ, থানায় ছুরি হাতে ঢুকে পড়া। 
আনিরুট বলেন, ‘‘তোমাকে আমার গিটারটা দিয়ে দেব।  তোমার ছুরিটা আমায় দাও। ’’

এর পরই আততায়ী ছুরি দিয়ে দেন আনিরুটকে।  তাঁকে বুকে জড়িয়ে খানিক শান্ত করার পরে আনিরুট তাঁর হাতে তুলে দেন জলের গ্লাস। 

দেখুন ভিডিওটি