২২, নভেম্বর, ২০১৭, বুধবার | | ৩ রবিউল আউয়াল ১৪৩৯

ফখরুদ্দীন বিরিয়ানিতেই কোটিপতি

২৮ অক্টোবর ২০১৭, ০২:০৯

ফখরুদ্দীন বাবুর্চির আদি বাড়ি ছিল চট্টগ্রামে।  পাটনাতে থাকতেন সপরিবারে।  ১৯৫৬ সালে ঢাকায় চলে আসেন তিনি।  পরিবার চালাতে ভিকারুননিসা নূন স্কুল অ্যান্ড কলেজে নাইটগার্ডের চাকরি নেন।  ৬৬-৬৭ সালের দিকে স্কুল কম্পাউন্ডেই কর্তৃপক্ষের অনুমতি নিয়ে তিনি তৈরি করেন একটি ক্যান্টিন।  সেই ছোট্ট ক্যান্টিন থেকে আজকের এই বিশাল ব্যবসার জন্ম, যার বিস্তৃতি এখন দেশ ছাড়িয়ে বিদেশেও।  এর মধ্যে সিঙ্গাপুরের সেরেঙ্গুনে ফখরুদ্দীন বিরিয়ানি অ্যান্ড রেস্টুরেন্টের শাখা
খোলা হয়েছে।  প্রবাসী বাঙালিরা তো বটেই, এমনকি বিদেশিরাও নাকি রীতিমতো লাইন ধরে খেতে যান ওখানে।  বাংলাদেশের বেশিরভাগ রাষ্ট্রীয় অনুষ্ঠানে খাবার সরবরাহ করার দায়িত্ব পায় ফখরুদ্দীন বিরিয়ানি অ্যান্ড রেস্টুরেন্ট।  তাদের এই খ্যাতির কারণে জর্ডানের বাদশাহর রাজকীয় অনুষ্ঠানে ফখরুদ্দীনের কাচ্চি বিরিয়ানি পরিবেশিত হয়েছিল। 

জেমস বন্ড খ্যাত পিয়ার্স ব্রসনানও নাকি একবার লন্ডনের এক 'ফ্লাইং রেস্টুরেন্ট' -এর উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে চেখে দেখেছেন ফখরুদ্দীনের কাচ্চি বিরিয়ানি।  ফখরুদ্দীন সাহেব যেভাবে রান্না করতেন এখনও ঠিক সেই একই রকম রান্না হয়।  কোনো কিছুর এক চুলও হেরফের হয়নি।  সঙ্গে আছে আন্তরিক চেষ্টা, ক্রেতাদের যাতে সব থেকে ভালোটা দেওয়া যায়।  ফখরুদ্দীন বিরিয়ানির শাখা ছড়িয়ে আছে এখন দেশ-বিদেশে।  রাজধানীর নামিদামি সব এলাকাতেই এই বিরিয়ানির শাখা আছে এখন।  অর্থের সঙ্গে দীর্ঘ শ্রম এবং আন্তরিকতা বিনিয়োগ করে আজকের অবস্থানটি তৈরি করেছে ঐতিহ্যবাহী ফখরুদ্দীন বিরিয়ানি অ্যান্ড রেস্টুরেন্ট।