১৫, ডিসেম্বর, ২০১৭, শুক্রবার | | ২৬ রবিউল আউয়াল ১৪৩৯

ফেলের ভয় দেখিয়ে ছাত্রদের সঙ্গে যৌন সম্পর্ক, ভিডিও ফাঁসের পর আটক

১৭ নভেম্বর ২০১৭, ০৪:২৯

‘তাঁর সঙ্গে বিছানায় শুতে হবে, নাহলে পরীক্ষায় পাস করাবেন না’।  এই হুমকি দিয়েই দিনের পর দিন স্কুলের ১৬-১৭ বছর বয়সি ছাত্রদের সঙ্গে যৌনতায় লিপ্ত হতেন ইয়োকাস্তা এম নামে ৪০ বছর বয়সি কলম্বিয়ার মেডেলিনের একটি স্কুলের শিক্ষিকা।  এই ঘটনাটি চলেছে গত বছর জানুয়ারি থেকে এপ্রিল মাস পর্যন্ত।  তবে পরবর্তীকালে সামনে আসার পরই ছাত্রদের পরিবারের লোকজনের অভিযোগের ভিত্তিতে তাঁকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ।  তাঁকে ৪০ বছরের সাজাও শোনানো হয়।  সম্প্রতি সামনে এসেছে সেই খবর। 

জানা
গিয়েছে, ওই শিক্ষিকার স্বামী যখন কাজে যেতেন তখনই এই কুকর্ম করতেন তিনি।  পড়ায় সাহায্য করার জন্য স্কুলের প্রায় ৪০ জন ছাত্রের কাছ থেকে তাদের নম্বর নিয়েছিলেন ওই শিক্ষিকা।  কিন্তু পড়াশোনায় সাহায্য করার পরিবর্তে তিনি তাদের নিজের অর্ধনগ্ন ছবি পাঠাতেন।  কখনও আবার বিকিনি পরে, কখনও আবার একেবারেই নগ্ন অবস্থায় হোয়াটসঅ্যাপে ছবিগুলি পাঠাতে থাকেন।  এরপরই ক্লাসে ফেল করিয়ে দেওয়ার ভয় দেখিয়ে বেশ কয়েকজন ছাত্রকে নিজের ফ্ল্যাটে মাঝেমধ্যেই ডেকে পাঠাতেন এবং ভয় দেখিয়ে যৌন সঙ্গমে লিপ্ত হতেন।  তবে শেষ পর্যন্ত তাঁর এই কুকীর্তি ফাঁস হয়।  এক ছাত্রের বাবা ছেলের অভিযোগ পেয়ে তার মোবাইল চেক করেন।  এরপরই হোয়াটসঅ্যাপে ওই শিক্ষিকার পাঠানো ছবিগুলি দেখতে পান আর তারপরই ঘটনার কথা প্রকাশ্যে আসে। 

এরপরই ওই শিক্ষিকার স্বামী তাঁকে ডিভোর্স দিয়েছেন।  শুধু তাই নয়, পুলিশ তাঁকে গ্রেপ্তার করে।  জানা গিয়েছে, দোষী সাব্যস্ত হওয়ায় তাঁকে ৪০ বছরের জেলের সাজা দিয়েছেন বিচারক।  এরপরই একে একে মুখ খুলতে থাকে ছাত্ররা।  সোশ্যাল মিডিয়ায় একজন লেখেন, ‘ইনি হলেন শিক্ষিকা ইয়াকোস্টা, উনি আমাদের হুমকি দিতেন ওঁর সঙ্গে সম্পর্ক না রাখলে আমাদের ফেল করিয়ে দেওয়া হবে। ’

দেখুন ভিডিওটি এখানেই