১৭, জানুয়ারী, ২০১৮, বুধবার | | ২৯ রবিউস সানি ১৪৩৯

ভারতে পুরুষ ছাড়াই এবার হজে যাবেন মুসলমান নারী তবে...

০১ জানুয়ারী ২০১৮, ১০:১৬

ভারতে এতদিনের নিয়ম ছিল মহিলারা হজ করতে গেলে সঙ্গে পুরুষ অভিভাবক থাকা চাই।  কিন্তু নতুন নিয়মে চলতি বছর থেকে আর সেই নিয়ম কার্যকর থাকছে না।  কেন্দ্রীয় সংখ্যালঘু মন্ত্রকের নতুন নীতিতে ৪৫ বছরের উপরের বয়সী মহিলারা পুরুষ অভিভাবক ছাড়াই হজ করতে মক্কায় যেতে পারবেন।  তবে তাঁদের দলটি কমপক্ষে চার জনের হতে হবে। 

রবিবার ‘মন কি বাত’ অনুষ্ঠানে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী বলেন, হজে ‘পুরুষ অভিভাবক’ বা ‘মহরম’ বাধ্যতামূলক হওয়াটাকে একটা ‘ছোট বিষয়’
মনে হতে পারে কিন্তু সমাজের চোখে আমাদের ভাবমূর্তির ক্ষেত্রে এর গুরুত্ব অনেক। 

নরেন্দ্র মোদী বলেন, এই নিয়ম জানার পরে তিনি অবাক হয়ে যান।  মোদী বলেন, এ নিয়ে খোঁজখবর নিতেই অবাক হয়ে যাই যে স্বাধীনতার ৭০ বছর পরেও আমাদের দেশে মুসলমান মহিলাদের জন্য এমন বৈষম্যমূলক নীতি চালু রয়েছে। 
 
বহু ইসলামিক দেশে এমন নিয়ম না থাকলেও ভারতে এত বছর ধরে কেন ছিল সে প্রশ্ন তুলে প্রধানমন্ত্রী বলেন, দশকের পর দশক ধরে আমাদের দেশে মুসলমান নারীদের উপরে অবিচার চলেছে। 

প্রধানমন্ত্রী দাবি করেছেন, এখনও পর্যন্ত পুরুষ অভিভাবক ছাড়াই প্রায় ১৩০০ মুসলমান সমাজের মহিলা হজযাত্রার আবেদন জানিয়েছেন।  নিয়ম অনুযায়ী কারা কারা হজযাত্রার সুযোগ পাবেন তা আবেদনকারীদের মধ্যে লটারির মাধ্যমে ঠিক করা হয়।  প্রধানমন্ত্রী এদিন জানান, মহিলাদের ক্ষেত্রে বিশেষ ছাড় দিতে হবে।  সংখ্যালঘু মন্ত্রককে দেখতে হবে যাতে যে সব মহিলারা আবেদন করেছেন তাঁরা সকলেই হজ করতে যাওয়ার সুযোগ পান।