২০, জানুয়ারী, ২০১৮, শনিবার | | ৩ জমাদিউল আউয়াল ১৪৩৯

যুক্তরাষ্ট্রকে ছেড়ে অন্য পথে পাকিস্তান

০৯ জানুয়ারী ২০১৮, ১১:৪৫

এবার যুক্তরাষ্ট্রের উপর ক্ষেপেছে পাকিস্তান।  অনুধান বন্ধের সিদ্ধান্তের কারনে যুক্তরাষ্ট্রকে ছেড়ে এবার চীন, রাশিয়া, তুরষ্ক ও দক্ষিন আফ্রিকার কাছ থেকে সামরিক সরঞ্জাম কেনার সিদ্ধান্ত নিয়েছে পাকিস্তান।  এতদিন অস্ত্র কেনার জন্য পাকিস্তানের মুল ভরসা ছিল যুক্তরাষ্ট্র।  পাকিস্তানের একটি বিশ্বস্ত সামরিক সূত্রের বরাতে সোমবার এ খবর জানিয়েছে দেশটির সংবাদমাধ্যম। 

পাকিস্তানের নৌবাহিনীর অধিকাংশ সরঞ্জামই যুক্তরাষ্ট্র থেকে কেনা।  তবে এবার তারা
এসব পন্যের জন্য ঝুকছে চীনের দিকে।  বিশেষ করে গানবোট ও সাবমেরিন চীনের কাছ থেকে সংগ্রহ করার চেষ্টা করছে।  সেই সঙ্গে চীন ও তুরস্কের কাছ থেকে হেলিকপ্টার গানশিপ এবং দক্ষিণ আফ্রিকার কাছ থেকে রণতরী কেনার কথা বিবেচনা করছে ইসলামাবাদ।  এ ছাড়া চীনের কাছ থেকে ক্ষেপণাস্ত্র প্রতিরক্ষাব্যবস্থা কেনার বিষয়েও বেইজিংয়ের সঙ্গে আলোচনা চালাচ্ছে ইসলামাবাদ। 


সূত্রটি জানিয়েছে, পাকিস্তান বেশ কয়েক মাস আগে থেকে উচ্চতর প্রশিক্ষণের জন্য সেনা ক্যাডেটদের আমেরিকায় পাঠানো বন্ধ করে দিয়েছে।  পাকিস্তান বিমানবাহিনী বর্তমানে চীন ও পাকিস্তানের যৌথ উদ্যোগে নির্মিত এফ-১৭ জঙ্গিবিমান ব্যবহার করছে।  এ ছাড়া এই বিমানের চতুর্থ ও পঞ্চম প্রজন্মের জঙ্গিবিমান নির্মাণের জন্য রাশিয়ার সঙ্গে আলোচনা চালিয়ে যাচ্ছে ইসলামাবাদ। 

২০১৭ সাল থেকে যুক্তরাষ্ট্র পাকিস্তান ঘনিষ্টতা কমতে শুরু করে।  পাকিস্তানকে সন্ত্রাসবাদে মদদ দেয়ার অভিযোগ এনে ২০০ কোটি ডলারের সামরিক অনুদান বন্ধের ঘোষনা দেন ট্রাম্প।  তারপর থেকেই পাকিস্তান এখন যুক্তরাষ্ট্র নির্ভরতা কমানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছে।