২০, জানুয়ারী, ২০১৮, শনিবার | | ৩ জমাদিউল আউয়াল ১৪৩৯

মাঝরাতে মেয়ের ঘরে কে, দেখতে গিয়ে সিনেমা স্টাইলে প্রান হারালেন বৃদ্ধ

১০ জানুয়ারী ২০১৮, ১১:৪৮

মাঝরাতে বাড়িতে আওয়াজ শুনে চমকে উঠেছিলেন এক ব্যক্তি।  ভাবলেন বাড়িতে হয়ত ‘চোর’ ঢুকেছে।  কিন্তু কিছুক্ষণ পরেই বুঝতে পারেন যে ‘চোর’ রয়েছে মেয়ের ঘরে।  অগত্যা মেয়ের ঘরে ঢুকে চোরের সঙ্গে হাতহাতি।  হাতাহাতির সময়ে পা পিছলে সিড়ি থেকে পড়ে গিয়ে প্রাণ হারান ওই ব্যক্তি।  ঘটনায় গ্রেফতার মৃতের মেয়ে। 

একটি সর্বভারতীয় সংবাদমাধ্যমে প্রকাশিত খবর অনুযায়ী, রবিবার মাঝরাতে নিজের বাড়িতে অদ্ভূত আওয়াজ শুনতে পান নয়ডার বাসিন্দা বিশ্বনাথ সাহু।  মাঝরাতেই
বাড়িতে আওয়াজের উৎস সন্ধানে বের হন তিনি।  কিন্তু কিছুক্ষণ পরেই ছন্দপতন।  ওই ব্যক্তি বুঝতে পারেন যে, আওয়াজ আসছে তাঁর মেয়ের ঘর থেকে।  দরজা খুলে তাঁর মেয়ে ও মেয়ের প্রেমিককে একসঙ্গে দেখতে পান বিশ্বনাথ সাহু।  সূত্রের খবর, মেয়ের প্রেমিককে বাড়ি ছেড়ে চলে যেতে বলেন তিনি।  কিন্তু মেয়ের প্রেমিক রাজি হয়নি।  শেষে হাতাহাতি বেধে যায় দু’জনের।  হাতাহাতির মাঝেই সিড়ি থেকে পড়ে গিয়ে মৃত্যু হয় ওই ব্যক্তির। 

মৃতের স্ত্রীর অভিযোগ, তাঁর মেয়ে পূজা ও মেয়ের প্রেমিক ধর্মেন্দ্রই খুন করেছে তাঁর স্বামীকে।  জানা গিয়েছে, বছর ২৪-এর ধর্মেন্দ্র ওই আবাসনেই থাকত।  স্থানীয় সূত্রে খবর, বেশ কয়েকমাস আগে প্রেমের সম্পর্কে জড়িয়েছিল ধর্মেন্দ্র ও পূজা।  এই নিয়ে বাড়িতে মাঝেমধ্যে অশান্তি লেগে থাকত।   
ইতিমধ্যে থানায় নিজের মেয়ে ও প্রেমিকের বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের করেছেন মৃতের স্ত্রী।  ঘটনার পরেই গ্রেফতার করা হয়েছে পূজাকে।  যদিও তাঁর প্রেমিক ধর্মেন্দ্র পলাতক।