১৯, ফেব্রুয়ারি, ২০১৮, সোমবার | | ৩ জমাদিউস সানি ১৪৩৯

বিশ্বব্যাংকের সাবেক প্রেসিডেন্ট রবার্ট একটা অপদার্থ: অর্থমন্ত্রী

০৫ ফেব্রুয়ারি ২০১৮, ০৮:১৪

পদ্মা সেতু প্রকল্পে দুর্নীতির ষড়যন্ত্রের অভিযোগ তোলার প্রসঙ্গ ধরে এবার বিশ্বব্যাংকের সাবেক প্রেসিডেন্ট রবার্ট জোয়েলিককে ‘অপদার্থ’ ও ‘অসম্ভব বাজে লোক’ বলেছেন অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত। 

জাতীয় রাজস্ব বোর্ড (এনবিআর) আয়োজিত ঢাকা আন্তর্জাতিক বাণিজ্য মেলায় অংশগ্রহণকারীদের মধ্যে সর্বোচ্চ ভ্যাট প্রদানকারী প্রতিষ্ঠানগুলোকে ভ্যাট সম্মাননা প্রদান ও পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে তিনি এ মন্তব্য করেন। । 

অর্থমন্ত্রী বলেন, বিশ্বব্যাংকের
একজন সভাপতি ছিলেন, রবার্ট জোয়েলিক।  অসম্ভব বাজে লোক, অত্যন্ত অপদার্থ।  সেই অপদার্থটি চাকরির শেষ দিন বাংলাদেশের বিরুদ্ধে অভিযোগ করল, পদ্মা সেতুতে কোনো একটি পরামর্শক নিয়োগ করার জন্য চক্রান্ত করছি।  ঘুষ নেওয়ার চক্রান্ত।  ঘুষ-টুষ তো পায় নাই।  কিন্তু চক্রান্ত হচ্ছে—সে কথা বলে পদ্মা সেতুর ঋণ বাতিল করে দিল জোয়েলিক। 

আবুল মাল আবদুল মুহিত বলেন, বোর্ডের কোনো ধরনের অনুমোদন ছাড়াই সে কাজটি করল।  আমাদের সৌভাগ্য, সেই বদমাশটি সেদিনই বিদায় হয়। 

তিনি  আরো বলেন, প্রধানমন্ত্রী প্রথম দিনই বলেছিলেন যে আমাদের এই ঋণের দরকার নেই।  তখন আমি বললাম যে, না এই অভিযোগটা যে ভুল, সেটা প্রমাণ করতে চাই।  সেই ঘুষের জন্য ষড়যন্ত্রের অভিযোগের যুদ্ধ আমরা অনেক দিন চালিয়ে গেলাম। 

অর্থমন্ত্রী বলেন, খুশির খবর হলো পদ্মা সেতু নির্মিত হচ্ছে।  আগামী বছরের জুনে আপনারা অবশ্যই পদ্মা সেতুর ওপর দিয়ে যেতে পারবেন।  যোগাযোগমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের সাহেব চেয়েছিলেন চলতি বছরের ডিসেম্বরে কাজ শেষ করতে।  তবে সেটি সম্ভব হবে না।  কারণ সব কটি স্প্যান এখনো বসে নাই। 

অনুষ্ঠানে সাবেক যোগাযোগমন্ত্রী সৈয়দ আবুল হোসেনকে ২০১৭ সালের জন্য ঢাকা সিটি করপোরেশনের সর্বোচ্চ আয়কর প্রদানকারী ও ঢাকা জেলার কর বাহাদুর পরিবার স্বীকৃতি দেয় এনবিআর।  এসময় বাণিজ্য মেলায় সর্বোচ্চ ভ্যাট প্রদান করা ১০ প্রতিষ্ঠানকে ভ্যাট সম্মাননা সনদ ও পুরস্কার দেয়া হয়। 

এনবিআর চেয়ারম্যান মো. মোশাররফ হোসেন ভূঁইয়া’র সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন প্রধানমন্ত্রীর অর্থ উপদেষ্টা ড. মশিউর রহমান।