২৩, ফেব্রুয়ারি, ২০১৮, শুক্রবার | | ৭ জমাদিউস সানি ১৪৩৯

ভালোবাসা দিবসে ব্রিটেনে বাড়ছে গর্ভধারণ

১৪ ফেব্রুয়ারি ২০১৮, ০৭:২৯

চতুর্দশ থেকে পঞ্চদশ শতাব্দীতে ব্রিটেনে ভালোবাসা দিবসের সুত্রপাত ঘটে।  তাই ভালোবাসা দিবস নিয়ে ব্রিটেনে আনন্দ উল্লাস একটু বেশিই থাকে।  তাদের মধ্যে ধারণা সূর্যোদয়ের পর প্রথম যে পুরুষকে তারা দেখবে সে অথবা তার মতোই কোনও পুরুষ এক বছরের মধ্যে তাদের জীবনসঙ্গী হবে। 

ফলে প্রচলিত ধারণা মতে, ভালোবাসা দিবসে ব্রিটেন এবং ইতালির অবিবাহিত মেয়েরা সূর্যোদয়ের আগে ঘুম থেকে উঠে।  এ ছাড়া অবিবাহিত মেয়েরা কাগজে পছন্দের ছেলের নাম লিখে সেই কাগজ মাটির বলে পেঁচিয়ে
পানিতে ফেলে দেয়।  যে নামের কাগজ সবার আগে ভেসে উঠবে তার সঙ্গেই বিয়ে হবে মেয়েটির। 

আর এ দিবসকে তাদের মধ্যে এ ধরণের সম্পর্কে কারণে ভালোবাসা দিবসে নারীদের গর্ভধারণের হার বাড়ছে ব্রিটেনে।  এমন তথ্য প্রকাশ করেছে দেশটির  স্বাস্থ্য দপ্তর।  ওই পরিসংখ্যানের বরাত দিয়ে খবর প্রকাশ করেছে ইন্ডিপেনডেন্ট। 

দেশটির  স্বাস্থ্য দপ্তরের পরিসংখ্যানে দেখা যাচ্ছে, ভালোবাসা দিবসে নারীদের গর্ভধারণের হার বাড়ছে।  ‍যদিও এই গর্ভ ধারণের হার ক্রিসমাস ছাড়াতে পারেনি। 

এনএইচএসর ২০১৫ সালের তথ্যে দেখা যায়, বছরের অন্য সপ্তাহগুলোর চেয়ে ১৪ ফেব্রুয়ারিসহ আগের ও পরের সাতদিন গর্ভধারণের হার ৫ শতাংশ বেশি। 

এনএইচসের আরেকটি পরিসংখ্যানে বলা হয়েছে, ভালোবাসা দিবসের চেয়ে ক্রিস্টমাসে গর্ভধারণের হার এখনও বেশি।  এছাড়া ঈদুল ফিতরের সময়ও গর্ভধারণ অন্য সময়ের চেয়ে বেশি হয়।