খালেদার মুক্তির দাবিতে এপ্রিল থেকে নতুন কৌশলে বিএনপি
The news is by your side.

খালেদার মুক্তির দাবিতে এপ্রিল থেকে নতুন কৌশলে বিএনপি

গত ৮ ফেব্রুয়ারি ঢাকার বিশেষ জজ আদালত ৫-এর বিচারক ড. আখতারুজ্জামানের আদালত খালেদা জিয়াকে পাঁচ বছরের সশ্রম কারাদণ্ড দেন। একই আদালত খালেদা জিয়া ও তারেক রহমানসহ ছয় আসামির সবাইকে মোট ২ কোটি ১০ লাখ ৭১ হাজার ৬৪৩ টাকা ৮০ পয়সা অর্থদণ্ডে দণ্ডিত করেন। এ অর্থদণ্ডের টাকা প্রত্যেককে সমান অঙ্কে প্রদান করতে হবে বলে রায়ে উল্লেখ করা হয়। রায়ের পর থেকে কারাগারে আছেন খালেদা জিয়া। জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট দুর্নীতি মামলায় তাকে কারাদণ্ড দেওয়া হয়।

জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট দুর্নীতি মামলায় জামিন হলেও রাষ্ট্রপক্ষের আবেদনের ফলে তা স্থগিত করা হয়। ফলে জামিন পেয়েও শেষ পর্যন্ত মুক্তি পানিন বিএনপির চেয়ারপারসন।

এদিকে দলের চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার মুক্তির দাবিতে আগামী ১ এপ্রিল সারাদেশে লিফলেট বিতরণ কর্মসূচি ঘোষণা করেছে বিএনপি।একই দাবিতে ৩ এপ্রিল প্রতিবাদ কর্মসূচি, ৪ এপ্রিল রাজশাহীতে, ৭ এপ্রিল বরিশালে এবং ১০ এপ্রিল সিলেটে জনসভা করবে দলটি।

নয়াপল্টনে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে বুধবার বেলা সাড়ে ১১টায় এক সংবাদ সম্মেলনে এ কর্মসূচির কথা জানান দলের সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী।

রিজভী বলেন, ‘জনগণের সরকার প্রতিষ্ঠা হবে ইনশাল্লাহ। বেগম খালেদা জিয়াকে আটকে রেখে পাতানো প্রহসনের ষড়যন্ত্রের নির্বাচনকে প্রতিহত করেই দেশনেত্রীর নেতৃত্বে বিএনপি অবাধ, সুষ্ঠু ও প্রতিযোগিতামূলক নির্বাচনে অংশ নেবে।’

এছাড়া খালেদা জিয়ার মুক্তি এবং ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যানকে সাজা দেয়ার প্রতিবাদে আগামী ২৯ মার্চ রাজধানীর সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে বিএনপির সমাবেশের প্রস্তুতি চলছে বলেও জানান রিজভী।তবে সমাবেশের অনুমতি এখনও পায়নি বিএনপি।