নেপালে বিমান বিধ্বস্তে ৯ বাংলাদেশি জীবিত আছেন

গতকাল সোমবার দুপুরে নেপালের ত্রিভুবন আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে ইউএস-বাংলার এয়ারলাইন্সের BS-211 বিমান বিধ্বস্ত হয়। এতে বাংলাদেশী ৩৬ জন যাত্রী ছিলো। তাদের মধ্যে ৯ জন জীবিত আছেন। বাংলাদেশ সরকারে পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী মো. শাহরিয়ার আলমের ফেসবুক অ্যাকাউন্টে দেয়া এক পোস্টে একথা জানান যায়।

পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী মো. শাহরিয়ার আলম জানান, নেপালে ইউএস বাংলা এয়ারলাইন্সের BS-211 বিমান বিধ্বস্তের ঘটনায় ৩৬ বাংলাদেশির মধ্যে মাত্র ৯ জন জীবিত আছেন।

সোমবার রাত ১০টা ২৭ মিনিটে নিজের ফেসবুক অ্যাকাউন্টে দেয়া এক পোস্টে একথা জানান তিনি।

বিধ্বস্ত বিমানের পাইলট, ক্রু ও যাত্রীদের নামের তালিকার ছবি পোস্ট করে তিনি লিখেছেন, পাইলট নরভিক হাসপাতালে চিকিৎসাধীন। একজন ক্রু সম্ভবত জীবিত আছেন, তবে তাকে এখনও পাওয়া যায়নি।

উক্ত তালিকা থেকে জানা যায়, বিমানটিতে মোট ৩৬ জন বাংলাদেশি ছিলেন। এর মধ্যে ৪ জন্য ইউএস বাংলার পাইলট ও ক্রু। বাকি ৩২ জন ছিলেন যাত্রী। ৩৬ জন বাংলাদেশির মধ্যে মাত্র ৯ জন জীবিত রয়েছেন, বাকিরা নিহত হয়েছেন।

আহতদের মধ্যে রয়েছে শাহরিন আহমেদ, আলমুন নাহার এ্যানি, শাহীন ব্যাপারী, মেহেদি হাসান, এমরানা কবীর, কবীর হোসেন, শেখ রাশেদ রোবায়েত ও সৈয়দা কামরুন্নার স্বর্ণা। তারা সবাই কাঠমান্ডু মেডিকেল কলেজে(কেএমসি) হাসপাতালে চিকিৎসাধীন আছেন। এছাড়া হাসপাতালে ভর্তি আছেন রেজওয়ানুল হক। বিমানটিতে ৪ ক্রু এবং ৬৭ যাত্রী মিলে ৭১ জন যাত্রী ছিলেন।