বিশ্বকাপ থেকে বাদ পড়ার শোকে আইসিইউতে!

সেই ১৯৮৩ সাল থেকে বিশ্বকাপ খেলে আসছে জিম্বাবুয়ে। ২০০৩ সালের বিশ্বকাপে সুপার সিক্সে উঠে এসেছিল আফ্রিকার দেশটি। অ্যান্ডি ফ্লাওয়ার, গ্রান্ড ফ্লাওয়ার, হিথ স্ট্রিকের মতো ক্রিকেটাররা উঠে এসেছে এই দল থেকেই। বাছাই পর্ব পেরুতে না পারায় ক্রিকেট জনপ্রিয়তার সেই দেশটা খেলতে পারবে না ২০১৯ সালের ওয়ানডে বিশ্বকাপ। বিষয়টি মানতে বড্ডই কষ্ট হচ্ছে জিম্বাবুয়ানদের। আর এই শোকে আইসিইউতে পর্যন্ত যেতে হলো একজনকে!

গত বৃহস্পতিবার সংযুক্ত আরব আমিরাতের বিপক্ষে ৩ রানে হেরে যাওয়াতে বিশ্বকাপ খেলার স্বপ্ন সেদিনই শেষ হয়েছে জিম্বাবুয়ের। এবারের বিশ্বকাপ বাছায়ের ম্যাচগুলো হয়েছে জিম্বাবুয়েতে। ফলে মাসাকাদজা-সিকান্দার রাজা-টেলরদের ঝড়ে পড়ার যন্ত্রনাটা কাছ থেকেই হজম করতে হয়েছে জিম্বাবুয়ানদের। সংযুক্ত আরব আমিরাতের বিপক্ষে হারা ওই ম্যাচের দিন দেখা যাচ্ছিল, গ্যালারিতে বসে অনেকেই ফুঁপিয়ে কাঁদছেন। জিম্বাবুয়ের বেশ কয়েকজন ক্রিকেটারকেও কাঁদতে দেখা গেছে।

টাপফুমানেই ভিভিয়ান বেনহায়ারের দুঃখ হয়তো সবচেয়ে বেশিই ছিল! জিম্বাবুয়ে ক্রিকেট সাপোর্টার্স ইউনিয়নের (জেডসিএসইউ) প্রধান তিনি। সংযুক্ত আরব আমিরাতের বিপক্ষে হেরে জিম্বাবুয়ের বিশ্বকাপ থেকে ছিটকে পড়াটা একেবারেই মানতে পারেননি বেনহায়ার।

রক্ত চাপ বেড়ে যাওয়াতে গুরুতর অসুস্থ হয়ে পড়েন তিনি। স্থানীয় ওয়েস্ট অ্যান্ড হাসপাতালে ভর্তি করা হলে চিকিৎসকরা তাকে নিবিড় পর্যবেক্ষণে (আইসিইউ) রেখেছেন। ২৪ ঘন্টা পর বেনহায়ার অবস্থা সম্পর্কে জানাতে চেয়েছেন চিকিৎসকরা।