বোরহানউদ্দিনে বিরোধের জেরে দোকান ভাংচুর

ভোলা প্রতিনিধি: বোরহানউদ্দিনে জমি-জমা সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে দোকান ঘরে হামলা ও ভাংচুরের ঘটনা ঘটেছে। রবিবার দিবাগত রাত আনুমানিক ৩ টার দিকে বোরহানউদ্দিন থানা সংলগ্ন সেলিম ভুইয়ার বাড়িতে এ ঘটনা ঘটে । জমি-জমার বিরোধের জের ধরে সেলিম ভুইয়ার ছোট ভাই হেলাল ভুইয়া, ভাতিজা পলাশ ও রিশাদ ভুইয়া এই কাজ করেছে বলে অভিযোগ করেছেন দোকান ঘর মালিক সেলিম ভূইয়া ।

সরজমিনে গিয়ে দেখা যায় যে, বোরহানউদ্দিন থানা সংলগ্ন (দক্ষিন পাশে) কুতবা মৌজায় বাসিন্দা সেলিম ভুইয়ার জমিতে দোকান হিসেবে ভাড়া দেওয়ার জন্য নির্মিত নতুন টিনের দোকান ঘর কুপিয়ে ভাংচুর করেছে সন্ত্রাসীরা। চালা ভেঙ্গে মাটিতে ফেলে রাখা হয়েছে ।

স্থানীয়রা জানান ৮ জুলাই (রবিবার) দিবাগত রাত ৩টার দিকে সেলিম ভুইয়ার ছোট ভাই হেলাল ভুইয়া, ভাতিজা পলাশ ও রেশাদ ভুইয়ার নেতৃত্বে কয়েকজন সন্ত্রাসী মিলে এই ভাংচুরের ঘটনা ঘটিয়েছে। সেলিম ভুইয়ার সাথে জমি-জমা সংক্রান্ত তাদের বিরোধ ছিল। সেলিম ভুইয়া বিরোধীয় ভুমি দীর্ঘদিন ধরে ভোগ দখল করে আসছে।

সেখানে সেলিম ভুইয়া বসতবাড়ী র্নিমান সহ আরো ৭/৮ দোকান ঘর ভাড়া দেয়। দোকান ঘরের মালিক সেলিম ভূইয়া জানান, তার পিতা মরহুম ছাদেক ভুইয়া ৪০ বছর আগে কুতবা মৌজায় বর্তমান থানা সংলগ্ন ১০৯০নং খতিয়ানে ১৮৮৫ নং দাগে তার নামে এই জমি কিনে। পিতার দেওয়া জমি দীর্ঘদিন তিনি ভোগ দখল করেছেন।

ভোগ দখলিয় জমিতে বসতবাড়ি সহ দোকান ঘর র্নিমান করে ভাড়া দিয়ে আসছিলেন। গত কয়েক বছর ছোট ভাই হেলাল ভুইয়া এবং বড় ভাই মৃত নিরব ভুইয়ার ছেলে পলাশ ও রিশাদ ওই জমির মালিকানা দাবি করছিল। এই বিষয় নিয়ে সমাধানের চেষ্টা করা হলেও সমাধান করা সম্ভব হয়নি।

কয়েকদিন আগে এই জমিতে দোকান ঘর তৈরি করতে গেলে তারা বাধার সৃষ্টি করে। গতকাল রাতে আনুমানিক ৩টার দিকে হেলাল, পলাশ ও রিশাদের নেতৃত্বে কয়েকজন দা, লাঠি, রড নিয়ে দোকান ঘরে হামলা চালায় এবং ভাংচুর করে। শব্দ পেয়ে আমরা বের হলে হামলাকারিরা চলে য়ায় । অভিযুক্ত হেলাল ভুইয়া, পলাশ ও রিশাদের সাথে যোগাযোগের চেষ্টা করে পাওয়া যায় নি। এব্যাপারে মামলার প্রস্তুতি চলছে ।