কর্ণফুলীর থানায় নতুন ওসির যোগদান

জে.জাহেদ, চট্টগ্রাম ব্যুরো: কর্ণফুলী থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) হিসেবে যোগদান করেছেন মো.আলমগীর মাহমুদ পিপিএম। গত শুক্রবার দুপুরে তিনি কর্ণফুলী থানার ওসি হিসেবে দায়িত্বভার গ্রহণ করেন। এর আগে বিদায়ী ওসি সৈয়দুল মোস্তফাকে বিদায় সংবর্ধনা ও নতুন ওসি মো.আলমগীর মাহমুদ পিপিএম’কে বরণের আয়োজন করে থানা স্টাফ। এতে পরিদর্শক (তদন্ত) মো. ইমাম হাসান, সেকেন্ড অফিসার মোহাম্মদ হোসাইন-সহ থানার সকল এসআই, এএসআই-সহ পুলিশ সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন।

গত বছরের ১৬ই নভেম্বর কর্ণফুলী থানার অফিসার হিসেবে যোগদান করেছিলেন সৈয়দুল মোস্তফা। প্রায় ১০ মাস ৪ দিন এই থানার ওসি হিসেবে দায়িত্ব পালন করার পর গত বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় মহানগর ডিবিতে বদলি হন তিনি। এদিকে নবাগত ওসি মো. আলমগীর মাহমুদ পিপিএম সর্বশেষ জেলার শিল্প পুলিশ ও নগরীর আকবর শাহ্ থানার ওসি ছিলেন। ১৯৯৯ সালে বাংলাদেশ পুলিশ বাহিনীতে তিনি যোগদান করেন। যোগদানের পর হইতে বিভিন্ন জেলায় অত্যন্ত সুনামের সহিত অর্পিত দায়িত্ব ও কর্তব্য পালন করেন। চট্টগ্রাম জেলার রাঙ্গুনিয়া উপজেলায় নিজ বাড়ি। বর্তমানে নগরীর আগ্রাবাদে বসবাস করেন।

চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন পুলিশে পতেঙ্গা ও আকবর শাহ্ থানায় সর্বমোট আমি ৩ বছর ৩ মাস অফিসার ইনচার্জ হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন।
আকবর শাহ থানায় ১৭মাস দায়িত্বপালন কালে মাদকের বিরুদ্ধে কঠোর অবস্থানের কারনে, মাদক উদ্ধার, মাদক ব্যবসায়ী গ্রেপ্তার করে মোট ৪০৭টি মামলা রুজু করে ৫৩৭ জন মাদক ব্যবসায়ীকে গ্রেপ্তার করেছিলেন তিনি। এসব মাদক ব্যবসায়ীদের কাছ থেকে বিপুল পরিমান ইয়াবা, ফেন্সিডিল, গাঁজা, হিরোইন ও চোলাই মদ উদ্ধার করেন। এর মধ্যে উদ্ধারকৃত ইয়াবার পরিমান ৩ লাখ ২৫ হাজার ১৮৯ পিস।

যার আনুমানিক মুল্য ছিল ১৬ কোটি ২৫ লাখ টাকা। এর পুর্বে ২ বছর ৩ মাস পূর্ব-তিমুর ও সুদানে জাতিসংঘ শান্তিরক্ষা মিশনে দায়িত্ব পালন করেন। বিগত ২০১৭ইং সালে আকবর শাহ থানায় দায়িত্বপালনকালে গুরুত্বপূর্ণ মামলার রহস্য উদ্ঘাটন, অপরাধ নিয়ন্ত্রন, কর্তব্যনিষ্ঠা, সাহসিকতা, দক্ষতা, সততা, শৃংখলামুলক আচরণের জন্য রাষ্ট্রপতি পুলিশ পদক পিপিএম (সেবা) অর্জন করেন তিনি। এ ছাড়া আলোচিত শিশু ‘একুশ’ উদ্ধারের ঘটনা সারা দেশে ব্যাপক প্রশংসিত হয়।

পিপিএম সেবা পদক প্রাপ্তিতে এই ঘটনাটিও গুরুত্বপূর্ণ ভুমিকা রাখে বলে জানা যায়। পরে আকবর শাহ থানা থেকে ইন্ডাস্ট্রিজ পুলিশে বদলিন হন। সম্প্রতি মহানগর ডিবি পুলিশে হয়ে কর্ণফুলীতে ওসি হিসেবে যোগদান করেন। নবাগত ওসি কর্ণফুলী থানার আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি স্বাভাবিক রাখতে ও মাদকমুক্ত রাখতে সকলের সহযোগিতা চেয়েছেন। ২০শে সেপ্টেম্বর চট্টগ্রামের পুলিশ কমিশনার মাহাবুবর রহমান কর্ণফুলী থানায় এই রদবদলের আদেশে জারি করেন।