নন্দীগ্রামে ঋণের টাকা পরিশোধ করতে – না পেরে আত্মহত্যা

নন্দীগ্রাম (বগুড়া) প্রতিনিধিঃ বগুড়ার নন্দীগ্রামে ঋণের টাকা পরিশোধ করতে না পেরে এক ব্যক্তি আত্মহত্যা করেছে। জানা গেছে, নন্দীগ্রাম পৌর এলাকার ফোকপাল গ্রামের পরান উদ্দিন খাঁর ছেলে আজাহার আলী খাঁ (৫৫) সংসারে অভাব-অনাটনের কারণে বিভিন্ন এনজিও এবং ব্যক্তির নিকট থেকে ঋণ গ্রহণ করে। সেই ঋণের টাকা পরিশোধ করতে হিমশিম খায়। এতে সে মানসিক দুঃচিন্তায় পড়ে।

এক পর্যায়ে ৫ই নভেম্বর ভোরে ফোকপাল গ্রামের কানাদীঘি পুকুরপাড়ে বিষপান করে অচেতন অবস্থায় পড়ে থাকে। সকালে লোকজন তাকে অচেতন অবস্থায় দেখতে পেয়ে সেখান থেকে উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যায়। সেখানে কর্তব্যরত ডাক্তার তাকে মৃত বলে ঘোষণা করে। আজাহার আলী খাঁর ছেলে সিরাজুল ইসলাম জানিয়েছে, তার পিতা প্রায় ২ লাখ টাকা ঋণগ্রস্থ হয়ে পড়ে। এতে সে মানসিকভাবে ভেঙ্গে পড়েছিল। এ কারনেই তার আত্মহত্যার ঘটনা ঘটেছে।

থানার ওসি নাসির উদ্দিনের সাথে কথা বললে তিনি বলেন, এ আত্মহত্যার ঘটনায় থানায় ইউডি মামলা হয়েছে। লাশের ময়না তদন্তের জন্য বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়।