খোকার ভরসা প্রশাসন, কায়সারের ভরসা জনগন, মান্নান নিরব

সাইফুল ইসলাম, সোনারগাঁ প্রতিনিধিঃ আসন্ন ৩০ ডিসেম্বর নির্বাচনকে কেন্দ্র করে নারায়ণগঞ্জ-৩ (সোনারগাঁ) সংসদীয় আসনে দিন দিন সহিংসতার মাত্রা বৃদ্ধি পাচ্ছে।

গত কয়েক দিনে সোনারগাঁয়ে মহাজোট প্রার্থী লিয়াকত হোসেন খোকার নেতাকর্মীদের দ্বারা ঐক্যফ্রন্ট তথা বিএনপি প্রার্থী আজহারুল ইসলাম মান্নান ও স্বতন্ত্র প্রার্থী আব্দুল্লাহ আল কায়সারের নেতাকর্মীদের উপর কয়েক দফা আক্রমণ করে। এতে বিএনপি প্রার্থী মান্নানের ১৫ জন ও স্বতন্ত্র প্রার্থী কায়সারে কয়েকজন নেতাকর্মী বিভিন্ন হাসপাতালে চিকিৎসাধীন।

এদিকে স্বতন্ত্র প্রার্থী কায়সার বলেছেন, মহাজোট প্রার্থী দাবিদার লিয়াকত হোসেন খোকা আমার জনপ্রিয়তায় ভয় পেয়ে আমার নেতাকর্মীদের উপর বিভিন্ন স্হানে তার সন্ত্রাসী বাহিনী দ্বারা আক্রমণ করাচ্ছে। তিনি আরোও বলেন ঐতিহ্যবাহী সোনারগাঁকে সন্ত্রাসীদের হাতে দেয়া যাবে না। আগামী ৩০ ডিসেম্বর নির্বাচনে সোনারগাঁয়ের সাধারন জনগন ভোটের মাধ্যমে এসব সন্ত্রাসীকে প্রত্যাখান করে সোনারগাঁয়ে শান্তির প্রতীক সিংহকে বিজয়ী করবে ইনশাল্লাহ।

এদিকে বিএনপি প্রার্থী মান্নান অভিযোগ করে বলেছেন, আমার নির্বাচনে যারা নিয়োজিত হচ্ছে হয় তাদের মামলা দিচ্ছে নতুবা হামলা করছে নতুবা হুমকি দিয়ে এলাকা ছাড়া করছে। প্রতিদিন আমার নেতাকর্মীদেরকে পুলিশ বিভিনভাবে হয়রানি করছে। নির্বাচনে অবাধ, সুষ্ঠ ও নিরপেক্ষ পরিবেশ তৈরি করার জন্য নির্বাচন কমিশনের প্রতি তিনি আহবান জানান।

পক্ষান্তরে সাধারন জনগন বলেছেন, সোনারগাঁয়ে অতীতের সব নির্বাচন উৎসবমুখর পরিবেশে অনুষ্ঠিত হয়েছে। কিন্তু এবারের নির্বাচনের মত ভীতিকর পরিবেশ কখনই দেখি নাই। আমরা প্রশাসনের নিরপক্ষ আচরণ দেখতে চাই। সাধারন জনগন স্বতঃস্ফূর্তভাবে যেন ভোটাধিকার প্রয়োগ করতে পারে সেদিকে প্রশাসনকে অবশ্যই দৃষ্টি রাখতে হবে।