আখাউড়ায় ভুল চিকিৎসায় রোগীর মৃত্যুর অভিযোগ

মো: সাইফুল ইসলাম, আখাউড়া প্রতিনিধিঃ আখাউড়ায় ভুল চিকিৎসায় সজিব মিয়া (১৮) নামে এক রোগীর মৃত্যু হয়েছে।

আজ মঙ্গলবার সন্ধ্যায় আখাউড়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের সুদাংশু নামে এক মেডিক্যাল এসিস্টেন্টের ভুল চিকিৎসার শিকার হয়ে তার মৃত্যু হয়েছে বলে অভিযোগ করেন স্বজনরা।

নিহত সজিব মিয়া আখাউড়া মোগড়া ইউনিয়নের জাঙ্গাল গ্রামের মো: হেবজু মিয়ার পুত্র। রোগীর মৃত্যুর পর তার স্বজনরা ক্ষুদ্ধ হলে হাসপাতাল ছেড়ে চিকিৎসক ও কর্মকর্তারা পালিয়ে যায়। খবর পেয়ে আখাউড়া থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনেন।

সজিবের চাচা নুর মোহাম্মদ (৪৫) জানায়, সকাল ১১টায় ধরখার-মোগড়াবাজারগামী সিএনজি চালিত অটোরিক্সা দুর্ঘটনায় সজিব আহত হয়। পরে তার স্বজনরা তার চিকিৎসার জন্য আখাউড়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে আসে কিন্তু জরুরী বিভাগে কর্তব্যরত ডাক্তার কাজী শাহরিয়া বিনকে পাওয়া যায়নি। পরে সুদাংশু নামে একজন মেডিক্যাল এসিস্টেন্ট তার চিকিৎসা শুরু করে। শরীরে জখম না থাকায় বিকালে ঘুমের ইনজেকশন দিলে সজিবের মৃত্যু যন্ত্রনা শুরু হয়। পরে বিকাল সাড়ে ৩টায় সজিব মারা যায়।

আখাউড়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের মেডিক্যাল অফিসার রুহুল মোহসেন সুজন জানায়, সড়ক দুর্ঘটনায় রোগীর মাথায় ইনজুরী ছিল। ব্যথা আর ঘুমের ইনজেকশনে রোগী মারা যায়নি বলে তার ধারণা।

এ ব্যাপারে আখাউড়া থানার ওসি তদন্ত মোহাম্মদ আরিফুল আমিন জানান, হাসপাতাল থেকে সজিবের লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য পাঠানো হয়েছে। ময়নাতদন্ত রিপোর্টের পর তার মৃত্যুর কারণ জানা যাবে। সজিবের মাথায় রক্তাক্ত জখম রয়েছে বলেও তিনি জানিয়েছেন।