শার্শায় ক্লিনিক থেকে নবজাতক চুরির পর উদ্ধার : আটক-১

জয়নাল আবেদীন, বেনাপোল (যশোর) প্রতিনিধিঃ যশোরের শার্শার একটি বেসরকারি ক্লিনিক থেকে এক নবজাতক চুরি হওয়ার ৮ ঘন্টা পর উদ্ধার হওয়ার খবর পাওয়া গেছে।

বুধবার দুপুর বারটার দিকে শার্শা উপজেলার নাভারন বাজারের ‘পল্লী ক্লিনিক এন্ড ডায়াগনোস্টিক সেন্টার’ থেকে শিশুটি চুরি হয়। এ ঘটনার পর থেকে শার্শা থানার এস আই আবুল হাসান সঙ্গীয় ফোর্স নিয়ে দিনভর অভিযান চালিয়ে অবশেষে রাত আটটার সময় ঝিকরগাছা উপজেলার দোষতিনা গ্রাম থেকে উদ্ধার করে। এবং সালমা খাতুন নামে এক মহিলাকে আটক করে।

যশোরের শার্শা উপজেলার মানকিয়া গ্রামের নবজাতকের পিতা শরিফুল ইসলাম বলেন, আমার স্ত্রী নাসরিন বেগমের প্রসব বেদনা উঠলে বুধবার ভোরে নাভারণে পল্লী ক্লিনিক এন্ড ডায়াগনোস্টিক সেন্টারে ভর্তি করা হয়। সেখানে সকাল ৯টায় টিকে সিজারিয়ানের মাধ্যমে একটা কন্যা সন্তানের জন্ম হয়।

পল্লী ক্লিনিক এন্ড ডায়াগনোস্টিক সেন্টারের তত্বাবধায়ক আব্দুল হামিদ জানান, অস্ত্রোপচারের মাধ্যমে সুস্থ্য সন্তান জন্ম দেন প্রসুতি নাসরিন। সন্তানটি আমরা তাদের হাতে তুলে দেয়। এর ঘন্টা দুই পরে শুনছি সন্তানটি পাওয়া যাচ্ছে না। বিষয়টি পুলিশকে জানানো হয়েছে।

শার্শা থানার উপ-পরিদর্শক এস আই আবুল হাসান বলেন, ঘটনার পর থেকে আমরা সঙ্গীয় ফোর্স নিয়ে দিনভর অভিযান চালিয়ে অবশেষে রাত ৭টার সময় ঝিকরগাছা উপজেলার দোষতিনা গ্রাম থেকে উদ্ধার করতে সক্ষম হয়। এবং সালমা খাতুন নামে এক মহিলাকে আটক করা হয়েছে।