চলতি বছরে খরচ বেড়েছে পবিত্র হজ পালনে

ইসলাম ধর্মাবলম্বীদের চলতি বছর পবিত্র হজ পালনে খরচ বেড়েছে। চলতি বছর সরকারি-বেসরকারি দুই ধরনের হজযাত্রায় খরচ বেড়েছে। এর আগের বছরও হজে যাওয়ার খরচ বেড়েছিল। সৌদি সরকার নির্ধারিত ট্যাক্স, বাড়ি ভাড়া, সার্ভিস চার্জ, কোরবানির পশুর দামসহ অন্যান্য খরচ বাড়ার কারণে এবার হজ প্যাকেজের মূল্য বেড়েছে।

সোমবার (১১ ফেব্রুয়ারি) প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ে মন্ত্রিসভার বৈঠকে ‘জাতীয় হজ ও ওমরাহ নীতি-২০১৯’ এবং ‘হজ প্যাকেজ-২০১৯’ এর খসড়া অনুমোদন দেয়া হয়।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বৈঠকে সভাপতিত্ব করেন। সোমবার প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ে মন্ত্রিসভার বৈঠকে দুটি হজ প্যাকেজ অনুমোদন দেওয়া হয়। বৈঠক শেষে সচিবালয়ে মন্ত্রিপরিষদ সচিব মোহাম্মদ শফিউল আলম সচিবালয়ে প্রেস ব্রিফিংয়ে এ অনুমোদনের কথা জানান।

সভা শেষে মন্ত্রিপরিষদ সচিব সাংবাদিকদের জানান, সরকারি ব্যবস্থাপনায় হজে এ বছর ব্যয় বাড়িয়ে হজ প্যাকেজ চূড়ান্ত করা হয়েছে। হজ প্যাকেজ ১-এ ব্যয় ধরা হয়েছে ৪ লাখ ১৮ হাজার ৫০০ টাকা। আগের বছরের চেয়ে যা ২০ হাজার ৫৭১ টাকা বেশি। প্যাকেজ ২-এ ১২ হাজার ৬৪১ টাকা বাড়িয়ে ব্যয় ধরা হয়েছে ৩ লাখ ৪৪ হাজার টাকা।

তিনি আরও বলেন, ইসলাম ধর্মাবলম্বীদের চলতি বছর পবিত্র হজ পালনে খরচ বেড়েছে। সরকারি ব্যবস্থাপনায় দু’টি প্যাকেজের মাধ্যমে হজ পালনের বিধান রেখে ‘হজ প্যাকেজ, ১৪৪০ হিজরি/২০১৯ খ্রিস্টাব্দ’ এর খসড়া অনুমোদন দিয়েছে মন্ত্রিসভা।

মন্ত্রিপরিষদ সচিব বলেন, এবার হজ পালনে প্যাকেজ-১ এ খরচ পড়বে ৪ লাখ ১৮ হাজার ৫০০ টাকা এবং প্যাকেজ-২-এ ৩ লাখ ৪৪ হাজার টাকা খরচ করতে হবে। গতবার প্যাকেজ-১ এর মাধ্যমে হজ পালনে খরচ হয়েছিল ৩ লাখ ৯৭ হাজার ৯২৯ টাকা এবং প্যাকেজ-২ এর মাধ্যমে খরচ হয়েছিল ৩ লাখ ৩১ হাজার ৩৫৯ টাকা।

চাঁদ দেখা সাপেক্ষে চলতি বছরের ১০ আগস্ট (৯ জিলহ্জ) পবিত্র হজ অনুষ্ঠিত হবে।