পাল্টা আক্রমণে ভারতের ৫ বিমানবন্দর অনির্দিষ্টকালের জন্য বন্ধ ঘোষণা

পাক-ভারতে এখন পুরোপুরি যুদ্ধের দামামা বাজছে। এরই মধ্যে পাকিস্তানের অন্তত পাঁচটি বিমানবন্দর বন্ধ ঘোষণা করা হয়েছে। এছাড়া বিমান বাহিনীর পাইলটদের মাত্র দুই মিনিটের মধ্যে উড্ডয়নের জন্য প্রস্তুত করা হয়েছে। খবর দিয়েছে ভারতীয় গণমাধ্যম ইন্ডিয়া টুডে।

আর পাল্টাপাল্টি আক্রমণের জেরে সীমান্তবর্তী পাঁচ বিমানবন্দর অনির্দিষ্টকালের জন্য বন্ধ ঘোষণা করেছে ভারতীয় কর্তৃপক্ষ। বুধবার সকালে জম্মু-কাশ্মীরে ভারতীয় যুদ্ধবিমান বিধ্বস্ত হয়ে দুই পাইলট নিহত হওয়া এবং পাকিস্তান ও ভারতীয় বিমানবাহিনীর একের পর আকাশসীমা লঙ্ঘনের ঘটনায় এ সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে। খবর দিয়েছে এনডিটিভি।

জানা গেছে, ভারতের জম্মু, লেহ, শ্রীনগর, পাঠানকোট ও চণ্ডিগড় বিমানবন্দরগুলো বন্ধ ঘোষণা করা হল।

এ বিষয়ে ভারতীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী রাজনাথ সিং সব আধাসামরিক বাহিনী এবং নিরাপত্তা প্রতিষ্ঠানগুলোর মধ্যে বৈঠকে বসেছেন। এতে সীমান্ত পরিস্থিতি নিয়ে ব্রিফ করা হবে।

বৈঠকে শেষে সীমান্তে সর্বশক্তি মোতায়েন এবং সম্পূর্ণ প্রস্তুতির জন্য সব বাহিনীর মহাপরিচালকদের নির্দেশনা দেয়া হবে। পাশাপাশি ভারতীয় বিমানবাহিনী সর্বোচ্চ নিরাপত্তা সতর্কতা জারি করেছে। সব যুদ্ধ ঘাঁটিতেও সতর্কতা দেয়া হয়েছে, যাতে ২ মিনিটের মধ্যেই পাইলট বিমান নিয়ে উড্ডয়ন করতে পারেন।

এর আগে পাকিস্তানের আন্তঃবাহিনীর জনসংযোগ অধিদফতরের মহাপরিচালক মেজর জেনারেল আসিফ গফুর সংবাদ সম্মেলনে এসে জানিয়েছেন, তিনজন ভারতীয় পাইলটকে আটক করা হয়েছে।

এদিকে, ভারতীয় পাইলট আটক করার পর একটি ভিডিও প্রকাশ করছে পাকিস্তান। ভিডিওতে দেখা গেছে, চোখ বাঁধা একজন লোক বলছেন, আমি উইং কমান্ডার অভিনন্দন এবং একজন পাইলট। আমার সার্ভিস নম্বর-২৭৯৮১।-খবর দিয়েছে ইন্ডিয়া টুডে।

বিষয়টি নিয়ে পাকিস্তানের সেনা কর্মকর্তারা বলেন, আমাদের স্থলবাহিনী দুই ভারতীয় পাইলটকে আটক করেছে। তাদের একজন আহত। তাকে সম্মিলিত সামরিক হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়েছে। আল্লাহর ইচ্ছায় তার প্রতি ভালো যত্ন নেয়া হবে। এছাড়া আরেকজন আমাদের সঙ্গেই আছেন।