সেনাবাহিনীকে প্রস্তুত থাকার নির্দেশ দিলেন ইমরান খান

গতকাল ২১ ফেব্রুয়ারি বৃহস্পতিবার জাতীয় নিরাপত্তা পরিষদের সম্মেলনে পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান তার দেশের সেনাবাহিনীকে ভারতীয় বাহিনীর যেকোনো হামলার চূড়ান্ত ও পূর্ণাঙ্গ জবাব দেয়ার কর্তৃত্ব দিয়েছেন।

এ সময় ইমরান খান তার বক্তব্যে বলেন, ‘নতুন পাকিস্তান যে তার জনগণকে রক্ষা করতে সক্ষম এবং এ ব্যাপারে দৃঢ়প্রতিজ্ঞ তা আমরা দেখিয়ে দিতে চাই।’

এ সময় ইমরান খানের নির্দেশের জবাবে সামরিক বাহিনীর শীর্ষ কর্মকর্তারা জানান, পাকিস্তানকে রক্ষা করতে তারা পুরোপুরি সক্ষম।

এদিকে ভারত নিয়ন্ত্রিত কাশ্মীরের পুলওয়ামা জেলায় ভারতীয় সেন্ট্রাল রিজার্ভ পুলিশ ফোর্সেস বা সিআরপিএফ’র বহরে সন্ত্রাসী হামলার পর পাক-ভারত উত্তেজনা যখন তুঙ্গে তখন ইমরান খান পাক সামরিক বাহিনীকে এই কর্তৃত্ব দিলেন।

তাছাড়া তিনি পাকিস্তানের স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় ও নিরাপত্তা প্রতিষ্ঠানগুলোকে দেশ থেকে সন্ত্রাসবাদ এবং চরমপন্থার শিকড় উপড়ে ফেলা প্রচেষ্টা জোরদার করার নির্দেশনা দিয়েছেন।

এদিকে পাকিস্তানের জাতীয় নিরাপত্তার প্রশ্নে যেকোনো গুরুত্বপূর্ণ সিদ্ধান্ত নেয়ার সর্বোচ্চ কর্তৃপক্ষ হচ্ছে এনএসসি। বৈঠকে ভূ-রাজনৈতিক, জাতীয় নিরাপত্তা এবং পুলওয়ামা হামলার পর উদ্ভূত পরিস্থিতি নিয়ে আলোচনা হয়। বৈঠক থেকে সন্ত্রাসী হামলায় পাকিস্তানের জড়িত থাকার সমস্ত অভিযোগ নাকচ করা হয়েছে।