গণভবন থেকে গাড়ি পাঠানো নয়, নিজে ভাড়া করে গণভবনে গেলেন ভিপি নুর

গত ১১ মার্চ অনুষ্ঠিত ডাকসু নির্বাচনে ভিপি এবং সমাজসেবা সম্পাদক ছাড়া বাকি ২৩টি পদে জয়ী হয়েছে ছাত্রলীগ। ২৮ বছর পর অনুষ্ঠিত এই নির্বাচনে ব্যাপক কারচুপির অভিযোগ তুলে তা বর্জন করেছে ছাত্রলীগ ছাড়া সবকটি প্যানেল। তারা পুনঃনির্বাচন দাবি করে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনকে আল্টিমেটাম দিয়েছে। আজ শেষ হচ্ছে সেই সময়সীমা।

এদিকে, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) লাল বসে করে গণভবনে পৌছেছেন ডাকসুর নবনির্বাচিত নেতারা। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় আটটি বাস এবং পাঁচটি মিনিবাসে করে নেতারা সেখানে পৌছান।

শনিবার (১৬ মার্চ) বিকাল ৩ টা ২০ মিনিটে গণভবনে পৌছেন তারা। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ৪ টায় গণভবনে তাদের সঙ্গে সাক্ষাৎ করবেন। হল সংসদের ২৩৪ এবং ডাকসুর কেন্দ্রীয় ২৫ জনসহ ২৫৯ জন আজ গণভবনে যান। এর আগে বৃহস্পতিবার (১৪ মার্চ) সন্ধ্যায় প্রধানমন্ত্রীর একজন বিশেষ সহকারী ফোনে আমন্ত্রণ জানান ডাকসু এবং হল সংসদে নির্বাচিতদের।

ছাত্রলীগ থেকে নবনির্বাচিত নেতারা বিশ্ববিদ্যালয়ের লাল বাসে করে গেলেও স্বতন্ত্ররাসহ ভিপি নুর উবারে গাড়ি ভাড়া করে গণভবনে গিয়েছেন। ভিপি নুরুল হক নুরসহ স্বতন্ত্রদের জন্য গণভবন থেকে গাড়ি পাঠানো হয়েছে কিনা তা জানা যায়নি। তবে তারা নিজেরা গাড়ি ভাড়া করে গণবনে গিয়েছেন, নিশ্চিত করেছেন যুগ্ম আহবায়ক আতাউল্লাহ।

এর আগে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয় থেকে পাঠানো আলাদা গাড়িতে গণভবনে গেলেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রীয় ছাত্র সংসদের নবনির্বাচিত সহ-সভাপতি (ভিপি) নুরুল হক নুর। বিভিন্ন সংবাদ মাধ্যমে প্রকাশিত সংবাদকে অসত্য দাবি করেছেন বাংলাদেশ সাধারণ ছাত্র অধিকার পরিষদের নেতারা।

জানা গেছে, ডাকসু ও হল সংসদের নেতারা ছাড়াও ভিসি অধ্যাপক ড. মো. আখতারুজ্জামান, দুই প্রো-ভিসি, বিভিন্ন হলের প্রাধ্যক্ষরা ছাড়াও শিক্ষক নেতারা উপস্থিত থাকবেন প্রধানমন্ত্রীর চায়ের আমন্ত্রণে।