১০ পেশার পুরুষের প্রতি নারীদের দুর্বলতা বেশি

নারীদের প্রতি পুরুষের যেমন আকর্ষণ রয়েছে তেমনি পুরুষের প্রতি নারীদেরও আকর্ষণ কম নয়। বিশেষ করে ১০ পেশার পুরুষের প্রতি দুর্বলতা বেশি দেখা যায়। একটি গবেষণায় এই তথ্য জানা গেছে। রিলেশানশিপ ম্যানেজমেন্ট সংস্থা ‘আ হার্ট টু উইন’ পরিচালিত একটি সমীক্ষা দাবি করছে ১০টি পেশার পুরুষদের প্রতি মেয়েদের বিশেষ আকর্ষণ বেশি।

দেখে নিন যে দশ পেশার পুরুষদের আকর্ষণ বেশি-

ডাক্তার: মানবসেবার ব্রতে এঁরা নিবেদিত। ডাক্তারদের তাই বরাবরই একটু আলাদা নজরে দেখে মেয়েরা।

অভিনেতা: অভিনেতাদের কে না পছন্দ করে! নিজের ভালবাসার মানুষ হিসেবেও তাই অভিনেতাদের বেছে নিতে চায় মেয়েরা।

গায়ক: একটা গান যত সহজে মানুষের মন জিতে নিতে পারে, তার তুলনা হয় না। স্বভাবতই গায়কদের প্রতি মেয়েরাও একটু আলাদা দুর্বলতা অনুভব করে।

ফটোগ্রাফার: বয়ফ্রেন্ড তার সুন্দর সুন্দর ছবি তুলুক, এটা কোন মেয়ে না চাইবে! কাজেই ফটোগ্রাফারদের প্রতি আলাদা আকর্ষণ মেয়েদের থাকেই।

সফটওয়্যার ইঞ্জিনিয়ার: ইঞ্জিনিয়ার তো এখন পাড়ার অলিতে-গলিতে। তাদের মধ্যেই সফটওয়্যার ইঞ্জিনিয়ারদের প্রতি একটু বেশি আকৃষ্ট হয় মেয়েরা।

শেফ: প্রেমিক বা বর যদি ভাল রাঁধতে জানে, তা হলে তা যে কোনও মেয়ের পক্ষেই আনন্দের। তা ছাড়া নামজাদা শেফদের রোজগারও প্রচুর।

সাহিত্যিক: বই পড়ার চল কমে গিয়ে থাকতে পারে, কিন্তু প্রেমিক কিংবা স্বামী হিসেবে এখনও অনেক মেয়েই সাহিত্যিকদের পছন্দ করে।

সেনাকর্মী: দেশরক্ষার মতো মহৎ কাজে যিনি নিজেকে সঁপে দিয়েছেন, সেই পুরুষের কাছে হৃদয় হারাতে প্রস্তুত থাকবে অনেক মেয়েই।

ব্যবসায়ী: ব্যস্ততায় ডুবে থাকা, একটু একটু করে নিজের ব্যবসার শ্রীবৃদ্ধি ঘটানো, পরিশ্রমের মাধ্যমে নিজের আর্থিক উন্নতি— একজন ব্যবসায়ীর এই সমস্ত লক্ষণকে ভাল না বেসে মেয়েরা পারে না।

পাইলট: আকাশের কাছাকাছি উ়়ড়ে বেড়ানোই পাইলটদের কাজ। অ্যাডভেঞ্চার, রোম্যান্স, অর্থ— কী নেই এই পেশায়। পাইলটরা তাই সহজেই জিতে নেন মেয়েদের মন।