ঘূর্ণিঝড় ফণীর তাণ্ডবের ভয়াহতা বর্ণনা দিল প্রত্যক্ষদর্শীরা

ভারতের উড়িশায় আঘাত হেনেছে বঙ্গোপসাগরে সৃষ্ট ঘূর্ণিঝড় ‘ফণী’। প্রবল শক্তি নিয়ে আজ শুক্রবার স্থানীয় সময় সকাল পৌনে ৯টার দিকে ওই রাজ্যের পুরী উপকূলে আঘাত হানে ঘূর্ণিঝড়টি।আর এর পরই আঘাত হানে আরেক সৈকত শহর গোপালপুরে।

ঘূর্ণিঝড় ‘ফণী’ উড়িশায় আছড়ে পড়ার সময় এর গতিবেগ ছিল ঘণ্টায় ২১০ কিলোমিটার। এই শক্তি নিয়ে ঘূর্ণিঝড় পুরী ও গোপালপুরজুড়ে তান্ডব চালাচ্ছে।

এ দিকে ভারতীয় গণমাধ্যমের এক ফটো সাংবাদিকের বর্ণনায় উঠে এসেছে ফণীর ভয়াবহ তাণ্ডবের দৃশ্য। ওই সাংবাদিকের নাম নারায়ণ চৌধুরী।

তিনি জানান, বর্তমানে সে অবস্থান করছেন ঐতিহাসিক তীর্থস্থান ও সৈকত শহর পুরীতে। সেখানে ভয়ানক রূপ নিয়ে সামুদ্রিক ঘূর্ণিঝড় ফণী আঘাত হেনেছে পুরীতে। মনে হচ্ছে লণ্ডভণ্ড হয়ে যাবে গোটা পুরী শহর।

নারায়ণ চৌধুরী বলেন, ঝড়ে উড়ে যাওয়ার ভয়ে ঢুকে গেলাম অন্ধকার বাথরুমে। বুঝছি হোটেলের একটার পর একটা অংশ ভেঙে পড়ছে। আমাদের হোটেলের বিরাট বিরাট কাঁচের জানালাগুলো ভেঙে পড়ছে।। কিছু দূরেই উত্তাল সাগর। মনে হয় সেই সাগরেই তলিয়ে যাবে পুরো শহরটা। সকালেই গার্ড ওয়াল ভেঙে গেছে। পুরী অসহায়-আগেই বিদ্যুৎহীন পুরো শহর।