বৃষ্টিতে ভেসে যাবে কাঙ্ক্ষিত ভারত-পাকিস্তান ম্যাচ!

ইংল্যান্ড অ্যান্ড ওয়েলসে ওয়ানডে বিশ্বকাপ ক্রিকেটের উত্তেজনায় মেতে ক্রিকেটের ভক্তরা। এবারের ভারত দুই ম্যাচে ৪ পয়েন্ট নিয়ে দ্বিতীয়তে অবস্থান করছে। অন্যদিকে, চার ম্যাচের মধ্যে ৩ পয়েন্টে নিয়ে পয়েন্টে তালিকার ৮ নম্বরে অবস্থান করছে সাবেক শিরোপা জয়ীরা।

দুই দেশর মধ্যে রাজনৈতিক চিরবৈরিতার কারণে এখন নিয়মিত ভারত-পাকিস্তানের মধ্যে দ্বিপক্ষীয় সিরিজ হয়। ফলে দুই দলের লড়াই দেখার জন্য অপেক্ষা করতে হয় ক্রিকেটের বৈশ্বিক টুর্নামেন্টের। আগামী ১৬ জুন ম্যানচেস্টারের ওল্ড ট্র্যাফোর্ডে গড়াবে চির চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী দুই দেশের।

এদিকে, বিশ্বকাপের বহুল প্রতীক্ষিত সেই মহারণ দেখতে উদগ্রীব চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী দুই দেশের সমর্থকেরা। তবে তাদের আশায় গুঁড়েবালি হতে পারে। বৃষ্টিতে ভেসে যেতে পারে কাঙ্ক্ষিত সেই ব্যাট-বলের যুদ্ধ। গেল কয়েক দিন ধরেই ম্যানচেস্টারে অবিরত বৃষ্টি হচ্ছে। বৃহস্পতিবারও অঝোর ধারে তা ঝরছে। খবর জিও নিউজ।

আবহাওয়ার পূর্বাভাস বলছে, রোববারও সেখানে দমকা হাওয়া ও বৃষ্টির সম্ভাবনা আছে।

এ বিষয়ে আবহাওয়া পূর্বাভাস বলছে, আগামী ১৭ জুন টনটনে বৃষ্টির সম্ভাবনা কম। ৩০ শতাংশ বৃষ্টির হবার সম্ভাবনা থাকবে।

আবহাওয়া পূর্বাভাসের বরাত দিয়ে বিবিসিও একটি প্রতিবেদনে বলেছে, ১৭ জুন থেকে ইংল্যান্ডে বৃষ্টির প্রভাব কমে আসবে। ওই সময় তাপামাত্রাও বেড়ে যাবে। আর ২৩ জুনের পর বৃষ্টি প্রভাব না থাকার সম্ভাবনাই বেশি। অর্থাৎ, ২৩ জুনের পর বিশ্বকাপের বাকি ম্যাচগুলো বৃষ্টির বাধা ছাড়াই শেষ করা যাবে।

যুক্তরাজ্যের আবহাওয়া অফিস আরো বলছে, পাক-ভারত ম্যাচের দিন বিরতি দিয়ে রোদ-বৃষ্টি সম্ভাবনা আছে। সকালে বৃষ্টি হতে পারে। পরে তা থেমে সূর্যের আলো ফুটতে পারে। সারাদিনই সেই খেলা চলবে।

অন্যদিকে, আবহাওয়া ডটকম জানিয়েছে, ওই দিন আকাশ মেঘাচ্ছন্ন থাকতে পারে। সকালে তুমুল বৃষ্টির সম্ভাবনা আছে। দিন গড়ানোর সঙ্গে আকাশ পরিষ্কার হলেও মাঝে মধ্যে বৃষ্টি উঁকি দিতে পারে। দুপুর-বিকাল গড়িয়ে সন্ধ্যায় ফের তা গড়াতে পারে। রাতেও বৃষ্টি নামতে পারে। সর্বোপরি, গোটা দিন প্রবল বর্ষণের সম্ভাবনা রয়েছে।