মেসির মতই আরেক লম্পট মেসি

বার্সালোনা ও আর্জেন্টিনার ম্যাজিশিয়ান লিওনেল মেসি। বিশ্বের কোন প্রান্তে যদি কোন তারকা দুর্দান্ত খেলে তাহলে তাকে বলা হয় সেই দেশের মেসি। যেমন নরওয়ের মেসি বলা হয় মার্টিন ওডেগার্ডকে। কিছুদিন আগে জাপানিজ মেসি নাকে খ্যাত এক তারকাকে কিনল রিয়াল।

তেমনই আছে একজন ইরানে। তার নামও ইরানি মেসি। তবে তিনি কিন্তু ফুটবলার নন। তাকে দেখতে হুবহু মেসির মতই লাগে।

মেসির মত হওয়ায় পেরেস্তেস নামে এই ব্যক্তিকে ঝামেলাও পোহাতে হয়েছিল বেশ। নিজে দেশেই আটক হয়েছিলেন পুলিশের হাতে। যেতে হয়েছে কারাগারেও।

এবার বেড়িয়ে এল তার গোপন কথা। তিনি এই চেহারা কাজে লাগিয়ে নারীদের ফাঁদে ফেলে বিছানায় নিয়ে যেতেন। এখন পর্যন্ত অন্তত ২৩জন নারীকে তার সাথে শয্যসঙ্গী করেছেন বলে অভিযোগ। এটাও মাত্র ২ বছরেই।

২০১৭ সালে একটি ইরানের মেহের নিউজ এজেন্সির কল্যানে আলোচনায় আসেন তিনি। অল্প সময়ের মধ্যেই জনপ্রিয়তা পান। বিজ্ঞাপনের বাজারেও জনপ্রিয় হয়ে উঠেন। বেশ কিছু বানিজ্যিক প্রতিষ্ঠানের সাথেও তার চুক্তি হয়।

সে রাস্তায় বেড় হলে মানুষ তাকে মেসি মনে করে দ্বিধায় পড়ে যেত। তার সঙ্গে দেখা করতে হাজির হত অনেক লোক। আর সেই সুযোগটাই কাজে লাগিয়েছেন তিনি।

ইরানের কয়েকটি সংবাদমাধ্যম জানিয়েছে, জনপ্রিয়তা পাওয়ার পর থেকেই মেসির মত চুল, দাড়ি ছাঁটেন তিনি। এরপরই নারীদের ফাঁদে ফেলা শুরু। এখন পর্যন্ত ২৩ জন নারীকে বিছানায় নিয়েছেন এই ইরানী মেসি। যদিও এই সব অভিযোগ অস্বীকার করেছেন ইরানি মেসি।