হলুদ বাটো মেন্দি বাটো গানের স্রষ্টা আলী হোসেন আর নেই

আরে ও প্রাণের রাজা, হলুদ বাটো মেন্দি বাটো, এ আকাশকে সাক্ষী রেখে, এ বাতাসকে সাক্ষী রেখে সহ অসংখ্য কালজয়ী গানের স্রষ্টার আলী হোসেন আর নেই। যুক্তরাষ্ট্রের বোস্টনের একটি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় গত মঙ্গলবার (১৬ ফেব্রুয়ারি) সন্ধ্যায় তিনি মারা গেছেন। সংবাদমাধ্যমকে এ বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন তার শ্যালক সৈয়দ তসলিম আলী।

আলী হোসেনের বাবার বাড়ি কুষ্টিয়ায়, নানা বাড়ি কুমিল্লায়। ১৯৪০ সালের ২৩ মার্চ নানা বাড়িতে জন্ম হয়েছিল তার। বাবার চাকরির সুবাদে পাকিস্তানের করাচিতে পড়াশোনা করেন তিনি। বাবার কারণেই গানের হাতেখড়ি হয়েছিল আলী হোসেনের। ১৯৬৪ সালে আলী হোসেন দেশে আসেন। দেশে আসার পর গান নিয়েই কেটেছে তার সময়।

ঢাকায় তার চিকিৎসা চলছিল। শারীরিক অবস্থার উন্নতি না হওয়ায় উন্নত চিকিৎসার জন্য যুক্তরাষ্ট্রে নেওয়া হয়েছিল তাকে। এ সুরকার ও সংগীত পরিচালকের মরদেহ ঢাকায় আনা হবে না। তার একমাত্র ছেলে আসিফ পরিবারসহ বোস্টনে থাকেন। সেখানেই তাকে দাফনের ব্যাপারে সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।

আলী হোসেনের সুর করা ‘হলুদ বাটো মেন্দি বাটো’ গানটি এখনো গ্রামীন বিয়ের অনুষ্ঠান প্রাণ জোগায়। ১৯৬৬ সালে ‘ডাক বাবু’ সিনেমার জন্য গানটি করেছিলেন তিনি। এ গানে কণ্ঠ দিয়েছিলেন সংগীতশিল্পী শাহনাজ রহমতুল্লাহ। কামাল আহমেদ পরিচালিত ‘ব্যথার দান’ সিনেমায় সংগীত পরিচালনার জন্য প্রথমবার জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার লাভ করেন এ সুরকার ও সংগীত পরিচালক।