এবার মক্কা-মদিনায় তারাবির নামাজ হবে ১০ রাকাত

কোভিড মহামারির কারণে গতবছর মসজিদে হারাম ও মসজিদে নববীতে সীমিত মুসল্লিদের অংশগ্রহণে তারাবির নামাজের ব্যবস্থা করা হয়েছিল। এবার আরো কিছুটা ছাড় দিলেও কঠোর স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলতে হচ্ছে মহামারী পরিস্থিতির কারণে।

সুদাইসি বলেন, তাহাজ্জুদ হবে ১০ রাকাত। মক্কা-মদিনায় ইফতার বিতরণ করা যাবে না। ইফতারের জন্য খেজুর, পানি ও কফি ব্যক্তিগতভাবে বহন করতে হবে। কারো সাথে ইফতার ভাগাভাগি করা যাবে না।

আজ রোববার (২৮ মার্চ) হারামাইনের প্রেসিডেন্ট ও মসজিদে হারামের প্রধান খতিব শায়খ আবদুর রহমান আস সুদাইস বলেন, পবিত্র রমাজনে উমরা পালনকারীরা কাবা স্পর্শ করতে পারবেন না। হাজরে আসওয়াদেও চুমু দিতে পারবেন না। মসজিদে হারামে প্রবেশের অনুমতি ইতামারনা অ্যাপসের মাধ্যমে নিবন্ধন করে নিতে হবে। সৌদি গেজেট, টুইটার

সুদাইসি বলেন, মাতাফ নামাজিদের জন্য বন্ধ থাকবে। মাতাফে শুধু উমরা করা যাবে। আর উমরা পালনের পর দুই রাকাত নামাজ প্রথম তলায় আদায় করতে হবে।

সুদাইসি আরো বলেন, ব্যাপকভাবে জমজমের পানি সরবরাহ বন্ধ থাকবে। তবে নির্দিষ্ট কর্মী ও বোতলের মাধ্যমে স্বতন্ত্রভাবে জমজমের পানি সরবরাহ করা হবে। প্রতিদিন দুই লাখ বোতল পানি বিতরণ করা হবে।