মসজিদুল আকসায় মুসলমানদের প্রবেশে ফের বাঁধা দিল ইহুদিরা

মুসলমানদের তৃতীয় পবিত্রতম স্থান পবিত্র মসজিদুল আকসায় প্রবেশে বাধা দিয়েছে ইসরাইলের অবৈধ বসতি স্থাপনকারীরা। এ সময় ইহুদিবাদী বসতি স্থাপনকারীদের সরাসরি সহযোগিতা করে দখলদার সেনাবাহিনী।

প্রত্যক্ষদর্শীরা বলছেন, এই পদক্ষেপ ছিল পূর্বপরিকল্পিত। ইসরাইলি বাহিনী আজ ভোর থেকেই মসজিদুল আকসা এলাকা ঘিরে রাখে। এরপর সেখানে ইহুদি বসতি স্থাপনকারীরা প্রবেশ করে। ইহুদিবাদী বসতি স্থাপনকারীরা যতক্ষণ মসজিদুল আকসা এলাকায় ছিল ততক্ষণ মুসলমানদের সেখানে ঢুকতে দেওয়া হয়নি।

বায়তুল মুকাদ্দাসের ইসলামী ওয়াকফ কাউন্সিলের প্রধান শেখ আবদুল আজিম সালাহাব ইহুদিবাদীদের এই পদক্ষেপের নিন্দা জানিয়ে বলেছেন, এ ধরণের পদক্ষেপ আবারও ফিলিস্তিনকে উত্তপ্ত করে তুলতে পারে। গাজায় যুদ্ধবিরতি প্রতিষ্ঠার কয়েক দিনের মধ্যেই উসকানিমূলক এই তৎপরতা চালালো ইহুদিবাদীরা।

গত ১০ মে গাজা উপত্যকার উপর ইহুদিবাদী ইসরাইলের ভয়াবহ বিমান হামলা শুরু হয়। ২১ মে পর্যন্ত চলা এ আগ্রাসনে ৬৯ শিশু ও ৩৯ নারীসহ ২৪৮ ফিলিস্তিনি শহীদ হন। আহত হন আরো ১৯১০ ফিলিস্তিনি। ইসরাইলি আগ্রাসনের মোকাবিলায় দখলীকৃত ভূখণ্ডে চার হাজারের বেশি রকেট নিক্ষেপ করে ফিলিস্তিনি প্রতিরোধ সংগঠনগুলো।

শেষ পর্যন্ত ফিলিস্তিনিদের প্রতিরোধের মধ্যে ২১ মে মিশরের মধ্যস্থতায় যুদ্ধবিরতি মেনে নিতে বাধ্য হয় ইহুদিবাদী ইসরাইল।ফলে এ যুদ্ধে ফিলিস্তিনি সংগ্রামীদের বিজয় স্পষ্ট হয়ে যায়।

সূত্রঃ পার্সটুডে