ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় ১০ হাজার দর্শকের উপস্থিতিতে ফুটবল ম্যাচ, কিছুই জানে না প্রশাসন

করোনা ভাইরাস মহামারী নিয়ন্ত্রণ করতে সরকার ঘোষিত কঠোর বিধি-নিষেধ শুরু হয়েছে সোমবার (২৮ জুন) সকাল থেকে। সরকার আরোপিত এই বিধি-নিষেধের মধ্যে রয়েছে যান চলাচল, গণ জমায়েত ও বিনা প্রয়োজনে ঘর থেকে বের হওয়ার ওপর নিষেধাজ্ঞা। কিন্তু এই বিধি-নিষেধ উপেক্ষা করে প্রায় ১০ হাজার মানুষের উপস্থিতিতে ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় অনুষ্ঠিত হয়েছে ফুটবল টুর্নামেন্ট।

গতকাল মঙ্গলবার (২৯ জুন) বিকেল ৪টা থেকে সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত জেলার সদর উপজেলার সুহিলপুরে ইউনিয়ন পরিষদের সামনের মাঠে এই খেলা অনুষ্ঠিত হয়।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, গত ১১ জুন বিকেলে সদর উপজেলার সুহিলপুর ক্রীড়া সংস্থার উদ্যোগে এমপি গোল্ড কাপ ফুটবল টুর্নামেন্টের আয়োজন করা হয়। যেখানে পার্শ্ববর্তী বিভিন্ন উপজেলা ও ইউনিয়নের দল অংশগ্রহণ করেছে।

করোনা মহামারী প্রতিরোধে সোমবার সকাল থেকে দেশব্যাপী কঠোর বিধিনিষেধ আরোপ করা হয়েছে। এই বিধি নিষেধ উপেক্ষা করে মঙ্গলবার বিকেল ৪টায় এই টুর্নামেন্টের কোয়ার্টার ফাইনাল খেলায় অংশগ্রহণ করে তেলীনগর একাদশ ও আশুগঞ্জ একাদশ ফুটবল দল। খেলাটি উপভোগ করতে সুহিলপুর খেলার মাঠে দর্শক ছিল কানায় কানায় পূর্ণ আয়োজকদের ধারণা, প্রায় ১০ হাজারেরও বেশি দর্শক মাঠে খেলা উপভোগ করেছে।

এই বিষয়ে তালশহর পূর্ব ইউনিয়নের চেয়ারম্যান এনামুল হক দুঃখ প্রকাশ করে বলেন, আমি গ্রামবাসীর চাপে খেলা দেখতে গিয়েছিলাম। এছাড়াও সুহিলপুর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান আজাদ হাজারী আমাকে আমন্ত্রণ জানিয়েছিল। আমার খেলা দেখতে যাওয়া ঠিক হয়নি।

সদর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা এমরানুল ইসলাম বলেন, কঠোর বিধি-নিষেধের মধ্যে ফুটবল খেলা ঠিক হয়নি। আমরা এই ঘটনা সম্পর্কে একদমই অবগত ছিলাম না। আমি ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যানের সাথে বিষয়টি নিয়ে কথা বলবো।

এই ব্যাপারে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা পঙ্কজ বড়ুয়া বলেন, যেখানে করোনা মোকাবেলায় দেশে কঠোর বিধিনিষেধ আরোপ করা হয়েছে, সেই সময় জনসমাগম করে ফুটবল খেলা দুঃখজনক। এ ব্যাপারে খোঁজ নিয়ে অতিসত্বর ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।