ইনশাল্লাহ, আমি পুরোপুরিভাবে ইসলাম অনুযায়ী চলবো: সানাই মাহবুব

সম্প্রতি অভিনয় জগত থেকে গুটিয়ে ইসলামের পথে নিজেকে সামিল করেছেন অভিনেত্রী সানাই মাহবুব সুপ্রভা। তার এ পরিবর্তন নেট দুনিয়ার প্রায় সবাইকেই অবাক করে দিয়েছে। সবাই দোয়া করছে আল্লাহ যেন তাকে দ্বীনের জন্য কবুল করেন।

নিজের জীবনের এ পরিবর্তন সম্পর্কে জানাতে গিয়ে এক লাইভ বার্তায় সানাই মাহবুব বলেন, ইসলামের পথে আসার এবং ধর্মের পথে ফিরে আসার জন্য আমার একটি অনুভূতি সবচেয়ে বেশি সাহায্য করেছে। সেটি হলো, আমি ভেবেছি, আমি যদি এই মুহূর্তে পরপারে চলে যাই তাহলে আমার প্রভূর কাছে কী নিয়ে যাবো? আমার তো তার সামনে উপস্থাপন করার মতো ভাল কোনো কিছু নেই।

সানাই মাহবুব বলেন, গত বছর আমার করোনা পজিটিভ হয়েছিল এবং করোনা হওয়ার পরে আমার শ্বাসকষ্ট এত পরিমাণে বেড়ে যায় যে আমাকে আইসিওতে ভর্তি করাতে হয়েছিল। আপনারা সবাই জানেন যে, যখন একটি মানুষ আইসিওতে যায়; তখন সে বাঁচা-মরার একটি কঠিন পরিস্থিতিতে পড়ে যায়। সেখান থেকে বেশিরভাগ মানুষই না ফেরার দেশে চলে যায়। সৌভাগ্যবানরা বেঁচে ফিরে আসে। বলেন, ।

আমি যখন আইসিইউতে ভর্তি ছিলাম, আমার শ্বাসকষ্ট প্রচন্ড বেড়ে গিয়েছিল। আমি ছটফট করতে ছিলাম, জীবনের কঠিন মুহূর্তটা অনুভব করতে ছিলাম; তখন আমি প্রতিজ্ঞা করি মনে মনে ‘আল্লাহ যদি আমাকে আইসিইউ থেকে ফিরিয়ে আনেন এবং বাঁচিয়ে রাখেন, আল্লাহ যদি আমাকে নতুনভাবে আমার জীবনটাকে সাজানোর তৌফিক দেন, আমি আমার নতুন উপহার পাওয়া এ জীবনটা আল্লাহর রাস্তায় ইসলামের জন্য ব্যয় করবো এবং আমি আইসিইউতে থেকেই আমার রাব্বুল আলামিনের কাছে তওবা করি।

সানাই মাহবুব বলেন, আমি আল্লাহর কাছে ওয়াদাবদ্ধ হয়েছি, আল্লাহ তুমি যদি আমাকে নতুন একটি জীবন দাও আমি এই জীবনে তোমার রাস্তায় পার করব। সেই ধারাবাহিকতায় আজকে আমার এই লাইভে আসে এবং পাবলিকলি আমার ব্যক্তিগত জীবন সম্পর্কে আপনাদেরকে জানানো। আমি কাউকে হেয় প্রতিপন্ন করছি না বা কাউকে ছোট করে দেখছি না। আমি আমার আগের পেশাটাকে (অভিনয়) ছেড়ে দিচ্ছি এবং আমি পুরোপুরিভাবে ইসলাম অনুযায়ী চলবো ইনশাল্লাহ।

সানাই মাহবুব আরও বলেন, আমি আইসিইউর বেডে শুয়ে শুয়ে ভাবছিলাম যে, আমি যদি এখন দুনিয়া ছেড়ে চলে যাই, পরপারে চলে যাব, তাহলে আমি কি নিয়ে যাবো? আমি আমার মাবুদের কাছে কী বলবো? তার সামনে আমি আমার কোন আমলনামা উপস্থাপন করব? তার সামনে উপস্থাপন করার মত তো আমার কিছুই নেই।