ঈদে বাড়ি গেলে ফেরা যাবে না ঢাকায়

দেশের আর্থ-সামাজিক অবস্থা এবং অর্থনৈতিক কার্যক্রম স্বাভাবিক রাখার স্বার্থে আগামী ১৪ জুলাই ২০২১ মধ্যরাত থেকে ২৩ জুলাই ২০২১ তারিখ সকাল ৬ টা পর্যন্ত সুত্রস্থ স্মারকদ্বয়ে আরোপিত সকল বিধি-নিষেধ শিথিল করা হলো। তবে এ সময়ে সর্বাবস্থায় জনসাধারণকে সতর্কাবস্থায় থাকা এবং মাস্ক পরিধানসহ স্বাস্থ্যবিধি কঠোরভাবে অনুসরন করতে বলেছে সরকার।

আজ মঙ্গলবার (১৩ জুলাই) দুপুরে এ প্রজ্ঞাপন জারি করেছে মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ।

প্রজ্ঞাপনে বলা হয়েছে, করোনাভাইরাসজনিত রোগ (কোভিড-১৯) সংক্রমণের পরিস্থিতি বিবেচনায় নিম্নোক্ত শর্তাবলি সংযুক্ত করে ২৩ জুলাই সকাল ৬টা থেকে ৫ আগস্ট দিবাগত রাত ১২ টা পর্যন্ত নতুন করে বিধিনিষেধ আরোপ করে প্রজ্ঞাপন জারি করেছে মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ।

নতুন প্রজ্ঞাপনে বলা হয়েছে, ঈদের পর ২৩ জুলাই সকাল ৬টা থেকে ৫ আগস্ট দিবাগত রাত ১২ টা পর্যন্ত সকল সরকারি, আধাসরকারি, স্বায়ত্তশাসিত ও বেসরকারি অফিসসমূহ বন্ধ থাকবে। পাশাপাশি সড়ক, রেল ও নৌ-পথে গণপরিবহন (অভ্যন্তরীণ বিমানসহ) ও সকল প্রকার যানবাহন চলাচল বন্ধ থাকবে।

ফলে, এবার ঈদে কেউ বাড়ি গেলে ঈদের দিন বা ঈদের পরদিন ২২ জুলাই কর্মস্থলের উদ্দেশে ঢাকায় ছুটতে হবে। তবে সড়কের যানজটে পড়লে আটকে পড়তে হতে পারে। ঈদের তৃতীয়দিন ২৩ জুলাই ভোর ৬টা থেকেই কঠোর বিধি-নিষেধ, ঈদে বাড়ি গেলে ফেরা যাবে না ঢাকায়। চলবে না কোন গনপরিবহন।

প্রজ্ঞাপনে আরও বলা হয়েছে, অতি জরুরি প্রয়োজন ব্যতীত (ওষুধ ও নিত্য প্রয়োজনীয় দ্রব্যাদি ক্রয়, চিকিৎসা সেবা, মৃতদেহ দাফন/সংকার ইত্যাদি) কোনোভাবেই বাড়ির বাইরে বের হওয়া যাবে না। নির্দেশনা অমান্যকারীর বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে। বিধি-নিষেধ বাস্তবায়নে ২৩ জুলাই থেকে আবারও মাঠে থাকবে সেনাবাহিনী, বিজিবি/কোস্টগার্ড, পুলিশ, র‌্যাব ও আনসার।