অবশেষে রহমতের বৃষ্টিতে ভিজলো রাজধানী

টানা কয়েকদিন ধরে তীব্র গরমে হাঁসফাঁস করছিলো রাজধানীবাসী। অসহ্য গরমের পর বহুল প্রত্যাশিত বৃষ্টির মুখ দেখলো তারা। বঙ্গোপসাগরে সৃষ্ট লঘুচাপটি অল্প সময়ের মধ্যে শক্তি সঞ্চয় করে গভীর নিম্নচাপে পরিণত হয়েছে।

এমনকি এটি শনিবারের (২৫ সেপ্টেম্বর) মধ্যে ঘূর্ণিঝড়ে পরিণত হতে পারে। ঘূর্ণিঝড়ে পরিণত হয়ে এটি ভারতের উত্তর অন্ধ্র প্রদেশ ও দক্ষিণ উড়িষ্যা উপকূল অতিক্রম করতে পারে। বাংলাদেশে এর খুব একটা প্রভাব পড়ার আশঙ্কা নেই বলে জানিয়েছেন আবহাওয়াবিদরা।

তবে এর প্রভাবে আগামী ২৪ ঘণ্টায় উপকূলীয় এলাকায় বৃষ্টি বাড়তে পারে বলে জানিয়েছে বাংলাদেশ আবহাওয়া অধিদপ্তর। একই সঙ্গে সমুদ্রবন্দরগুলোতে ১ নম্বর দূরবর্তী সতর্ক সংকেত দেখাতে বলেছে সংস্থাটি।

গত মার্চ থেকে এ পর্যন্ত দেশজুড়ে তৃতীয় তাপপ্রবাহ বইছে। প্রচণ্ড গরমে জনজীবনে নাভিশ্বাস উঠেছে। দুপুরে (২৫ সেপ্টেম্বর) রাজধানীতে স্বস্তির বৃষ্টি হয়।

এ অবস্থায় এক পশলা বৃষ্টি মানুষের মধ্যে স্বস্তির নিঃশ্বাস এনে দিয়েছে। বৃষ্টির পর রাজধানীর আবহাওয়া শীতল হয়েছে। বিভিন্ন শ্রেণীর মানুষ কেও ভিজতে দেখা গেছে।