আমি জানি না লিটন কেনো দলেঃ ওয়াসিম আকরাম

টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে কথা বলছে না বাংলাদেশ ওপেনার লিটন দাসের ব্যাট। ব্যাটে রান খরা প্রভাব ফেলেছে ফিল্ডিংয়েও। এমনিতে চৌকশ ফিল্ডার হিসাবে পরিচিত লিটন শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে সুপার টুয়েলভের ম্যাচে ছেড়েছেন দুইটি সহজতম ক্যাচ। যেকারণে বাংলাদেশ ম্যাচ থেকে ছিটকে যায়।

এদিকে লিটন দাসের এমন পারফরম্যান্সে সমালোচনা হচ্ছে বিস্তর। যেখানে যোগ দিয়েছেন পাকিস্তানের বিশ্বকাপজয়ী দলের (১৯৯২) সদস্য ওয়াসিম আকরামও। এ স্পোর্টসের ম্যাচ পরবর্তী বিশ্লেষণে লিটন দাসের ফর্ম নিয়ে কথা বলেন ওয়াসিম। প্রস্তুতি ম্যাচ থেকেই লিটন ঘুমিয়ে আছেন বলে মত দেন তিনি।

এ ব্যাপারে ওয়াসিম বলেন, ‘লিটন দাসকে তো প্রস্তুতি ম্যাচ থেকেই ঘুমিয়ে আছে বলে মনে হচ্ছে। কোয়ালিফাইং রাউন্ডে সে খেলেছে সেখানেও সে রান করতে পারেনি, ভালো ফিল্ডিংও সে করছে না। আমি জানি না সে দলে কেনো আছে।’ আল আমিরাতে ওমান এ দলের বিপক্ষে ৫৩ রানের ইনিংস খেলার পর আবু ধাবিতে দুই প্রস্তুতি ম্যাচে ১৬ ও ১ রান করেন লিটন। রাউন্ড ১ এর ৩ ম্যাচে তার রান ছিল যথাক্রমে ৫, ৬ ও ২৯। শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে সুপার টুয়েলভের ম্যাচে করেন ১৬ বলে ১৬ রান।

লিটনের ব্যাটিংয়ের সমালোচনা করলেও শারজাহর উইকেটে বাংলাদেশের ব্যাটিংয়ের প্রশংসা করেন ওয়াসিম আকরাম। কিং অব সুইংয়ের কণ্ঠে প্রশংসা ঝরে শ্রীলঙ্কার চারিথ আসালাঙ্গা ও ভানুকা রাজাপাকশের জন্যও। ওয়াসিম বলেন, ‘আমি মনে করি বাংলাদেশ খুব ভালো খেলেছে। শারজাহর উইকেটে তারা ১৭০ এর বেশি রান করেছে। শারজাহর উইকেট লো স্কোরিং, আইপিএলেও লো স্কোরিং হয়েছে। এরপর শ্রীলঙ্কার ৪ উইকেট ফেলেও দিয়েছিল।’

তিনি আরও বলেন, ‘৮০ এর মধ্যে ৪ উইকেট ফেলে দেবার পর আসালাঙ্কা ও রাজাপাকশে থামেই নি, শট খেলে গেছে। তখন না মেরে যদি ব্লক করত তাহলে দল প্রেশারে এসে যেতো। তবে তারা দুজন তা হতে দেননি। প্রতিপক্ষের ওপর চাপ বাড়িয়েছেন, দারুণ খেলেছেন তারা।’