আবারও বিশ্বের সবচেয়ে জনপ্রিয় রাষ্ট্রনেতা মোদি

ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি ও পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে চিঠি দিয়েছেন দুই বাংলার জনপ্রিয় অভিনেতা প্রসেনজিৎ চট্টোপাধ্যায়। খবর নিউজ এইটটিনের।

নতুন খবর হচ্ছে, আবারও বিশ্বের সবচেয়ে জনপ্রিয় রাষ্ট্রনেতার খেবার পেলেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। ৭০ শতাংশ সমর্থন নিয়ে মোদি অনেক পেছনে ফেলেছেন জো বাইডেন, অ্যাঙ্গেলা মের্কেল, বরিস জনসন, জায়ের বলসোনারো, ইমানুয়েল ম‌্যাক্রোর মতো রাষ্ট্রনেতাদের।

সমীক্ষাটি চালিয়েছে মার্কিন সংস্থা ‘মর্নিং কলসাল্ট’। কয়েকশো কোটি ডলারের এই সংস্থাটি তথ্য বিশ্লেষণের কাজ করে। প্রতি সপ্তাহে এরা বিশ্বের ১৩টি দেশের রাষ্ট্রপ্রধানদের জনপ্রিয়তাও পরিমাপ করে।
গতকাল শনিবার তারা তাদের সমীক্ষার যে ফল প্রকাশ করেছে, তাতে দেখা যাচ্ছে, এই সপ্তাহে জনপ্রিয়তার নিরিখে বিশ্বে এক নম্বর ভারতের প্রধানমন্ত্রী। এ সপ্তাহে ভারতের প্রধানমন্ত্রীর অ্যাপ্রুভাল রেটিং ৭০ শতাংশ। ঘটনাচক্রে ২০১৯ সালে মর্নিং কনসাল্ট যখন থেকে সমীক্ষা শুরু করে তখন থেকেই প্রধানমন্ত্রী মোদির অ্যাপ্রুভাল রেটিং ৬০ শতাংশের ওপরেই রয়েছে।

জনপ্রিয়তার নিরিখে মোদির পরই রয়েছেন মেক্সিকোর প্রেসিডেন্ট লোপেজ ও’ব্র‌্যাডর। মোদিকে ৭০ শতাংশ মানুষ সমর্থন করেন। দুই নম্বরে থাকা লোপেজের প্রতি সমর্থন ৬৬ শতাংশ। কিছুটা হলেও সমর্থন বেড়েছে ও’ব্র‌্যাডরের। তিন নম্বরে রয়েছেন ইতালির প্রধানমন্ত্রী মারিও দ্রাঘি। চতুর্থ স্থানে জার্মানির চ‌্যান্সেলর অ্যাঙ্গেলা মের্কেল। তার প্রতি ৫৪ শতাশ মানুষের সমর্থন রয়েছে। ৪৭ শতাংশ মানুষের সমর্থন নিয়ে অস্ট্রেলিয়ার প্রধানমন্ত্রী স্কট মরিসন রয়েছেন পঞ্চম স্থানে রয়েছেন। কানাডার প্রধানমন্ত্রী জাস্টিন ট্রুডো ৪৫ শতাংশ সমর্থন নিয়ে রয়েছেন ষষ্ঠ স্থানে। মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন ৪৪ শতাংশ মানুষের সমর্থন নিয়ে নেমে গেছেন সপ্তম স্থানে। আফগানিস্তান থেকে মার্কিন সেনা প্রত‌্যাহারের সিদ্ধান্তই যে বাইডেনের জনসমর্থন কমিয়ে দিয়েছে, তা নিয়ে কোনো সংশয় নেই।

সূত্র: সূত্র : টাইমস নাও নিউজ, জি নিউজ, সংবাদ প্রতিদিন