বাড়ির সামনে ‘মাদক ব্যবসায়ীর বাড়ি’ লেখা সাইনবোর্ড

মাধবপুর উপজেলার সীমান্তবর্তী গ্রামগুলোর কয়েকটি বাড়ি চিহ্নিত করতে বাড়ির সামনে ‘মাদক ব্যবসায়ীর বাড়ি’, ‘চোরাকারবারির বাড়ি’ লেখা সাইনবোর্ড লাগিয়েছে বিজিবি। সীমান্তে মাদক ব্যবসা ও পাচার নির্মূলে এমন উদ্যোগ নিয়েছে বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি)।

বিজিবি সূত্রে জানা যায়, মাদক নির্মূলে তারা এ ব্যতিক্রমী উদ্যোগ নিয়েছে। সীমান্ত এলাকার চিহ্নিত মাদক ব্যবসায়ীদের বাড়ির সামনে ডিজিটাল ব্যানারের সাইনবোর্ড লাগিয়ে গত সোমবার থেকে এ উদ্যোগ কার্যকর করছেন তারা। হবিগঞ্জ ৫৫ ব্যাটালিয়নের রাজেন্দ্রপুর, হরিণখোলা ও মনতলা, বিওপির বিজিবির মনতলা কোম্পানি কমান্ডার সুবেদার আবু বকর, হরিণখোলা ক্যাম্প কমান্ডার নায়েক সুবেদার সাদেক আলী এবং রাজেন্দ্রপুর ক্যাম্প কমান্ডার হাবিলদার আ. হাফিজ এর নেতৃত্বে এ কার্যক্রম চলছে।

তারা জানান, এ পর্যন্ত মাধবপুর উপজেলার বহরা ইউনিয়নের কৃষ্ণপুর গ্রামের বলু মিয়া, রাজেন্দ্রপুর গ্রামের আহাদ মিয়া, শ্রীধরপুর গ্রামের কবির মিয়া, চৌমুহনী ইউনিয়নের রামনগর গ্রামের ধনু মিয়া, কাউছার মিয়া, জয়নাল মিয়ার ও সফু মিয়া, কমলপুর গ্রামের স্বপন মিয়া, খালেক মিয়ার,জানু মিয়ার বাড়ির সামনে সাইনবোর্ড লাগানো হয়েছে। চিহ্নিত এই ১০টি বাড়ির মালিক বিভিন্ন সময়ে মাদকসহ বিজিবির হাতে ধরা পড়ে এবং একাধিক মাদক মামলা রয়েছে।

বিজিবির এ ব্যতিক্রমী উদ্যোগের প্রশংসা করেছেন স্থানীয় জনসাধারণ। এতে মাদক ব্যাবসা চোরাকারবারি কমে আসবে বলে তারা মনে করেন। তারা প্রত্যেক মাদক ব্যাবসায়ীর বাড়ি এভাবেই চিহ্নিত করার দাবি জানান।

এ বিষয়ে হবিগঞ্জ ৫৫ ব্যাটালিয়নের অধিনায়ক লে. কর্নেল এস এন এম সামীউন্নবী চৌধুরী জানান, বিজিবির হাতে ধরা পড়া চিহ্নিত মাদক কারবারিদের বাড়িতে এভাবে সাইনবোর্ড লাগানোর উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে। এ উদ্যোগ মাদক নির্মূলে সহায়তা করবে। এখন থেকে নিয়মিত এ কার্যক্রম পরিচালিত হবে।