যারা দুইবছর পরপর বিশ্বকাপের বিরোধিতা করছে তারা ভীতঃ ফিফা সভাপতি

নিঃসন্দেহে ফুটবল বিশ্বের সবচেয়ে জনপ্রিয় খেলা। ৯০ মিনিটের এই খেলায় খেলোয়াড় এবং দর্শকদের মধ্যে বেশ উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়ে। আর খেলা মানেই রেকর্ড ভাঙ্গার প্রতিযোগিতা। একজন খেলোয়াড়ের রেকর্ড আরেক খেলোয়াড় ভেঙ্গে দিয়ে নতুন রেকর্ড গড়বে, সৃষ্টি করবে নতুন এক ইতিহাস।

নতুন খবর হচ্ছে, বেশ কিছুদিন ধরেই ফিফার সভাপতি ইনফান্তিনোর চিন্তায় আছে দুই বছর পরপর বিশ্বকাপ আয়োজন করা। তবে অনেক দেশ এতে দ্বিমত জানিয়েছে। তবে এবার তাদের একহাত নিলেন জিয়ান্নি ইনফান্তিনো। তার মতে, বৈশ্বিক আসরটি দুই বছর পরপর আয়োজনের বিরোধিতা যারা করছে তারা আসলে পরিবর্তন নিয়ে ভীত এবং নিজেদের অবস্থান নিয়ে শঙ্কিত।

শুধু ফিফার সভাপতিই নন, সাবেক আর্সেনাল কোচ ও ফিফার হেড অব ফুটবল ডেভেলপমেন্ট আর্সেন ওয়েঙ্গার বিভিন্ন অনুষ্ঠানে নিয়মিতভাবেই বলে আসছেন দুই বছর বিরতিতে বিশ্বকাপ আয়োজন নিয়ে। তুলে ধরছেন এর সুযোগ-সুবিধা এবং বিশ্ব ফুটবলে এর সম্ভাব্য ইতিবাচক প্রভাবের দিকটি।

এদিকে ব্রাজিলের ‘দা ফেনোমেনন’ রোনালদোসহ সাবেক কয়েকজন ফুটবলার ফিফার ভাবনার পক্ষেও মত দিয়েছেন। কায়রোতে শুক্রবার (২৬ নভেম্বর) কনফেডারেশন অব আফ্রিকান ফুটবলের কংগ্রেসে অংশ নেন ফিফার সভাপতি। তিনি ধারণা করছেন আফ্রিকান দেশগুলো প্রতি দুই বছর পরপর বিশ্বকাপ আয়োজনের পরিকল্পনাকে সমর্থন জানাবে।

ইনফান্তিনো বলেন, ‘শীর্ষে যারা আছে তারাই এর বিরুদ্ধে অবস্থান নিয়েছে। জীবনের প্রতিটি ক্ষেত্রেও কোনোরকম সংস্কার ও পরিবর্তন হওয়ার সময় এমনটাই দেখা যায়। যারা শীর্ষে থাকে তারা কোনো পরিবর্তন করতে চায় না, কারণ তারা শীর্ষে আছে। তারা ভয় পায় এটা ভেবে যে কোনো পরিবর্তন হলে তাদের নেতৃত্ব ঝুঁকির মুখে পড়তে পারে।‘