ভোলা প্রতিনিধিঃ ভোলা সদর উপজেলায় জমি নিয়ে বিরোধকে কেন্দ্র করে মনসুর(৪৫) নামের এক যুবককে খুঁটির সঙ্গে বেঁধে মধ্যযুগীয় কায়দায় নির্যাতন করার অভিযোগ পাওয়া গেছে। লোমহর্ষক ঘটনাটির ভিডিও শুক্রবার (৭ আগস্ট) রাতে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে ছড়িয়ে পড়লে তীব্র নিন্দা ও ঘটনার সঙ্গে জড়িতদের গ্রেফতারের দাবি জানানো হয়।

গত ২৫ জুলাই ভোলা সদর উপজেলার ২নং ইলিশা ইউনিয়নের ৯ নং ওয়ার্ড এলাকার প্রভাবশালী রশিদ মল্লিকের বাড়িতে এ ঘটনা ঘটানো হয়। এ ঘটনায় শনিবার (৮ আগস্ট) সকালে পুলিশ ঘটনার সঙ্গে জড়িত থাকার অভিযোগে রশিদ মল্লিক নামের একজনকে আটক করেন।

নির্যাতনের শিকার যুবক মনসুর জানান, জমি নিয়ে তার বোন জামাই রশিদ মল্লিকের সঙ্গে বিরোধ হলে গত ২৫ জুলাই তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে তাকে ঘর থেকে ডেকে নিয়ে যায়। এরপর প্রকাশ্যে গরুর খুঁটির সঙ্গে হাত-পা বেঁধে তাকে ঘণ্টাব্যাপী অমানবিক নির্যাতন করে। এক পর্যায়ে তাকে গরুর গোবর খাইয়ে দেয়। প্রতিপক্ষ প্রভাবশালী হওয়ায় এত দিন তিনি ভয়ে মুখ খোলেননি। পুলিশের হাতে আটক রশিদ মল্লিক শুক্রবার বিকালে নির্যাতনের ভিডিওটি সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকে ছড়িয়ে পড়লে টনক নড়ে প্রশাসনের।

শনিবার সকালে ঘটনার সঙ্গে জড়িত থাকার অভিযোগে রশিদ মল্লিককে আটক করে পুলিশ। ভোলার ইলিশা পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের ইনচার্জ উপ-পরিদর্শক(এসআই) রতন কুমার শীল এ তথ্য নিশ্চিত করে বলেন, ঘটনার সঙ্গে জড়িত অন্যদেরও আটকের জন্য অভিযান অব্যাহত আছে। এ ঘটনায় ভোলা সদর মডেল মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে।